হজ নিবন্ধনের সর্বনিম্ন কোটা পূরণ করতে পারেনি ২০ এজেন্সি

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১১:৫৬ এএম, ১৮ এপ্রিল ২০১৯

চলতি বছর বেসরকারি ২০ হজ এজেন্সি সর্বনিম্ন ১০০ হজযাত্রী নিবন্ধন কোটা পূরণ করতে পারেনি।

জাতীয় হজ ও ওমরা নীতি-২০১৯ অনুযায়ী সর্বনিম্ন কোটা পূরণ না হওয়ায় ওই ২০ হজ এজেন্সিকে সমঝোতা পূর্বক সমন্বয়ের মাধ্যমে লিড এজেন্সি নির্ধারণ অথবা সর্বনিম্ন কোটা পূরণ করে হজযাত্রীদের নিবন্ধন কার্যক্রম সম্পন্নের অনুরোধ করা হয়েছে।

গত ১৬ এপ্রিল ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মো. শিব্বির আহমদ উসমানী স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ অনুরোধ জানানো হয়।

ধর্ম মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, সর্বনিম্ন ১০০ জন নিবন্ধনের কোটা পূরণ করতে অক্ষম ২০ এজেন্সির মধ্যে সর্বোচ্চ 88 ও সর্বনিম্ন চারজনের নিবন্ধন বাকি রয়েছে।

অভিযুক্ত ২০ এজেন্সি হলো- এ আর ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস, রাশা সারা ওভারসিজ লিমিটেড, মোতাহের ট্রাভেলস ইন্টারন্যাশনাল, খান জাহান আলী হজ ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরস, মোবাশ্বিরা ট্র্যাভেল অ্যান্ড ট্যুরস, সরাইল বি বাড়িয়া ট্রাভেলস ইন্টারন্যাশনাল, ফ্লাই সুন ইন্টারন্যাশনাল ট্রাভেল এজেন্সি, তানজিল এভিয়েশন সার্ভিস, রাইয়ান ট্রাভেলস ইন্টারন্যাশনাল, মেরিন ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস লিমিটেড, ট্রাইটন ওভারসিজ লিমিটেড, মোহাম্মদিয়া ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরস, খান অ্যান্ড সন্স ট্রাভেলস, বাংলা এয়ার সার্ভিসেস, শরীফ এয়ার সার্ভিসেস লিমিটেড, বদরপুর ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরস, সালাম আবাদ ট্রাভেলস, মিম ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস, কওমি ট্রাভেল অ্যান্ড ট্যুরস ও হিজাজ ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস।

এমইউ/এএইচ/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :