সংরক্ষিত আসনে জাপার মনোনয়ন পেলেন শেরিফা কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৩৮ পিএম, ১৩ অক্টোবর ২০২১

জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত নারী আসনের (৪৫) শূন্যপদে জাতীয় পার্টির (জাপা) মনোনয়ন পেয়েছেন দলটির চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা ও জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির আহ্বায়ক শেরিফা কাদের।

বুধবার (১৩ অক্টোবর) জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যানের প্রেস সেক্রেটারি খন্দকার দেলোয়ার জালালী বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, জাতীয় পার্টির নেতা ও সংসদ সদস্য অধ্যাপক মাসুদা এম রশিদ চৌধুরী গত ১৩ সেপ্টেম্বর মারা গেলে সংসদে নারীদের জন্য সংরক্ষিত ৪৫ নম্বর আসনটি শূন্য হয়। পরে এ আসনে ভোটগ্রহণের দিন নির্ধারণ করে নির্বাচন কমিশন।

এ বিষয়ে ইসির যুগ্মসচিব ফরহাদ আহাম্মদ খান জানান, আগামী ১৭ অক্টোবর সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টার মধ্যে প্রার্থীর পক্ষে প্রস্তাবক বা সমর্থক নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র জমা দিতে পারবেন। ১৮ অক্টোবর বাছাইয়ের পর ২৩ অক্টোবরের মধ্যে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করা যাবে।

শেরিফা কাদের দলটির চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা ও লালমনিরহাট জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি এবং জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির সভাপতি। জি এম কাদেরের স্ত্রী শেরিফা কাদের দীর্ঘ ২০ বছর ধরে জাতীয় পার্টির রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। প্রায় এক যুগ আগে জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ তাকে দলের ভাইস চেয়ারম্যান নিয়োগ দেন।

বাংলাদেশের সংবিধানের নিয়মে সরাসরি ভোটে ৩০০ আসনে নির্বাচনের পর নিবন্ধিত দলগুলোর আসন সংখ্যার অনুপাতে সংরক্ষিত ৫০টি নারী আসন বণ্টন করা হয়। দলের মনোনীত একক প্রার্থীরাই প্রতিটি সংরক্ষিত আসনে মনোনয়নপত্র জমা দেন। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের সময় পার হলে তাদেরই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়। ফলে ভোটের আর প্রয়োজন হয় না।

অধ্যাপক মাসুদা এম রশিদ চৌধুরী গত ১৩ সেপ্টেম্বর মারা গেলে সংরক্ষিত ৪৫ নম্বর আসনটি শূন্য হয়। উপ-নির্বাচনে এ আসনে জাতীয় পার্টি যে প্রার্থীকে মনোনয়ন দেবে, তিনিই নির্বাচিত হবেন। চলতি একাদশ সংসদে জাতীয় পার্টির জন্য চারটি সংরক্ষিত আসন রয়েছে।

এসএম/এমএএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]