১৫ মে’র মধ্যে মানতে হবে হোয়াটসঅ্যাপের নতুন প্রাইভেসি পলিসি

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৪৮ পিএম, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২১

ব্যক্তিগত তথ্যের গোপনীয়তা (প্রাইভেসি পলিসি) রক্ষার জন্য যে নতুন নীতি ঘোষণা করেছে হোয়াটসঅ্যাপ। আগামী ১৫ মে’র মধ্যে তাতে সম্মতি না জানালে তাদের হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট ইনঅ্যাক্টিভ হয়ে যাবে। তার চারমাস পর (১২০ দিন) সেই অ্যাকাউন্ট পুরোপুরি ডিলিট করে দেয়া হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের একটি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ব্যবহারকারীদের গোপনীয়তা রক্ষার নতুন নীতি কার্যকর করতে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ বদ্ধপরিকর। সেই নীতিতে সম্মতি জানানোর জন্য ব্যবহারকারীদের জন্য ১৫ মে পর্যন্ত বেধে দিয়েছে সংস্থাটি। এর মধ্যে যদি কোনো ব্যবহারকারী সম্মতি না জানান, তাহলে তাকে আর নতুন করে সময় দেয়া হবে না।

হোয়াটসঅ্যাপের নতুন প্রাইভেসি পলিসিতে সম্মতি না জানালে ব্যবহারকারীদের কি কি মাশুল গুণতে হবে তা নিজেদের আলাদা একটি পেজে বিস্তারিত জানিয়েছে সংস্থাটি।

বলা হয়েছে, ‘নতুন নীতিতে সম্মতি জানানোর জন্য যে অ্যাকসেপ্ট বাটন রয়েছে তাতে ‘ক্লিক’ না করলে ব্যবহারকারীরা কয়েকদিন হোয়াটসঅ্যাপ কল ও নোটিফিকেশন পাবেন। কিন্তু অ্যাপ থেকে কোনো মেসেজ পড়তে ও পাঠাতে পারবেন না।’

সেক্ষেত্রে ব্যবহারকারীদের সামনে দুটি পথ খোলা থাকছে। যথা-

>> হোয়াটসঅ্যাপের নতুন নীতিতে সম্মতি জানানো।

>> চ্যাট হিস্ট্রি ডাউনলোড করে অন্য মেসেজিং অ্যাপে চলে যাওয়া।

১৫ মে’র মধ্যে নতুন প্রাইভেসি পলিসিতে সম্মতি না জানালে ব্যবহারকারীর হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট অকেজো হয়ে যাবে। তার ১২০ দিন পর সেই অ্যাকাউন্ট আপনা আপনিই মুছে যাবে।

সূত্র : আনন্দবাজার

এআরএ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]