যেসব জাতের ভেড়া পালন করা লাভজনক

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:২৪ পিএম, ২৭ জুন ২০২২

মানুষ প্রাচীনকাল থেকেই মানুষ পশু পালন করে আসছে। বিশ্বজুড়ে এমনই এক জনপ্রিয় গৃহপালিত প্রাণী হচ্ছে ভেড়া। মাংস, চামড়া, পশম এবং দুধ উৎপাদনের জন্য বিশ্বজুড়ে ভেড়ার জনপ্রিয় কয়েকটি জাত রয়েছে। এসব জাতের মধ্য থেকে জেনে নেওয়া যাক বিখ্যাত ও লাভজনক ১০টি ভেড়ার জাত সম্পর্কে।

লিসেস্টার লং-উল শিপ: মানসম্পন্ন মাংস এবং চামড়া উৎপাদন, এই দুটি কারণে এটিকে উন্নত জাতের ভেড়ার তালিকায় রাখা হয়। বিভিন্ন দেশের তাঁতীদের কাছেও এর লোম বিরল এবং পছন্দনীয়।

মেরিনো: ফাইবারের প্রিমিয়াম ও উন্নতমানের কারণে এটি সবচেয়ে জনপ্রিয় ভেড়ার জাতগুলোর একটি। মেরিনো জাতের ভেড়ার পশম পোশাক শিল্প বিশেষত বাচ্চাদের জন্য উন্নতমানের পোশাক এবং অন্যান্য আনুষাঙ্গিক তৈরিতে ব্যবহৃত হয়।

টার্কানা: পাহাড়ের রানি হিসেবে পরিচিত, টার্কানা রোমানিয়া, ইউক্রেন, মোল্দাভিয়া, গ্রিস, আলবেনিয়া, ক্রোয়েশিয়া, পোল্যান্ড এবং বালকান দেশগুলোর অন্যতম প্রশংসিত জাত। তুর্কানার পশম বিশেষভাবে গালিচা তৈরিতে ব্যবহৃত হয়। এটি এর মাংসের জন্যও বিখ্যাত এবং অবশ্যই সেই সঙ্গে তাদের দুধ থেকে উৎপন্ন উন্নতমানের দুগ্ধজাত পণ্যগুলোর জন্য যেমন ফেটা, দই এবং বিভিন্ন ধরনের পনির। এছাড়াও এদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতায় উল্লেখযোগ্য।

লিংকন: এই জাতটি তার উন্নত ফাইবারের জন্য সুপরিচিত এবং বিশ্বজুড়ে ফেব্রিক ডিজাইনার এবং তাঁতীদের দ্বারা প্রশংসিত। এর ওজন ২৬০ থেকে ৩৫০ পাউন্ডের মধ্যে হয়ে থাকে।

ডরসেট: এই ভেড়ার জাতটি বেশি পরিমাণে ভালোমানের দুধ এবং সুস্বাদু মাংস উৎপাদন করে। এবং এর এই উন্নতমানের মাংস ও দুধের জন্যই ডরসেট জাতটি বিশ্ব বাজারে বিশেষভাবে প্রশংসনীয়।

সিগাই: এই জাতের ভেড়া মূলত পশম উৎপাদন এবং পাশাপাশি দুধ এবং মাংসের জন্য পালিত হয়। রোমানিয়ান রাখালরা জিনগত পারফরম্যান্সকে উন্নত করার জন্য এর উন্নয়ন ঘটিয়েছে।

jagonews24

ডার্পার: ডার্পার জাতের ভেড়া পালনের জন্য বিশেষ কোনো সুবিধার প্রয়োজন নেই এটি শুষ্ক অঞ্চলেও পালন করা যায়। এরা মাঝারি থেকে বড় আকারের হয়। পাশ্চাত্য, এই ধরনের জাতটি বিশেষ জনপ্রিয় কারণ এরা সহজেই মৌসুম পরিবর্তনের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নিতে পারার দক্ষতার জন্য। এর পশম উন্নতমানের পোশাক তৈরিতে ব্যবহার করা হয়।

ইস্ট ফ্রিজিয়ান: ফ্রিজিয়ান জাতের ভেড়ার আরেকটি বিভাগ হলো ইস্ট ফ্রিজিয়ান, অধিক পরিমাণ দুধ উৎপাদন এর জন্য এরা পরিচিত এরা প্রজননের পর ২২০ থেকে ২৪০ দিনে প্রায় ৯৯০ থেকে ১১০০ দুধ প্রদান করে।

হ্যাম্পশায়ার: বিভিন্ন সময় বিভিন্ন অঞ্চলের রাখালরা একাধিক প্রজাতির জাত থেকে সেরা গুণাবলী অর্জনের জন্য ভেড়ার বিভিন্ন ক্রসব্রিড তৈরি করেছিলো। এই ক্রস ব্রিডগুলোর মধ্যে একটি অন্যতম জাত হ্যাম্পশায়ার। এই জাতের ভেড়া মাঝারি আকারের এবং শিংহীন।

সাফলক ভেড়া: এই জাতের ভেড়া এদের উন্নতমানের গুণাবলির জন্য বিখ্যাত। সাফলক ভেড়া এদের স্ট্যামিনা এবং উন্নত মাংস উৎপাদনের জন্য বিশেষভাবে পরিচিত।

এমএমএফ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]