আজকের কৌতুক : একজনের দুই স্ত্রী হলে যা হয়

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:০০ পিএম, ০৯ নভেম্বর ২০২০

একজনের দুই স্ত্রী হলে যা হয়
মাঝরাতে ফোন এলো ডাক্তারের কাছে-
শফিক: ডাক্তার সাহেব, আমার স্ত্রীর অ্যাপেন্ডিক্সে প্রচণ্ড ব্যথা হচ্ছে।
ডাক্তার: মাঝরাতে উল্টাপাল্টা কথা বলে বিরক্ত করবেন না। ঘুমান।

একটু পর আবার ফোন-
শফিক: ডাক্তার সাহেব, অ্যাপেন্ডিক্সের ব্যথায় আমার স্ত্রী ঘুমাতে পারছে না।
ডাক্তার: আরে বোকা, গত বছর যখন ব্যথা হলো, আমি নিজে অপারেশন করে আপনার স্ত্রীর অ্যাপেন্ডিক্স ফেলে দিয়েছি। একজন মানুষের দু’টা অ্যাপেন্ডিক্স হয়, কখনো শুনিনি।
শফিক: কিন্তু একজন মানুষের দুটি স্ত্রীর কথা নিশ্চয়ই শুনেছেন।

****

ডাক্তারি না পড়ে ঠেলাগাড়ি চালানো
নায়ক: ডাক্তার সাব, আমার মায় বাঁচবো তো?
ডাক্তার: খুব দ্রুত অপারেশন করতে হবে। অপারেশনের জন্য ৪০ লাখ টাকা লাগবে।
নায়ক: আপনে কোনো চিন্তা করবেন না ডাক্তার সাব! আমি রিকশা চালাইয়া, ইট ভাইঙ্গা, ঠেলাগাড়ি ঠেইল্যা ২ দিনে আপনের সব ট্যাকা জোগাড় করুম!
ডাক্তার: আগে বলবে তো! তাহলে এত টাকা খরচ করে ডাক্তারি না পড়ে ঠেলাগাড়ি ঠেলতাম।

****

প্রয়োজনের চেয়ে উঁচু গলায় কথা
আয়নাল কানে কম শোনেন। হেয়ারিং এইড কিনতে গেলেন দোকানে-
আয়নাল: ভাই, হেয়ারিং এইডের দাম কত?
দোকানদার: পাঁচ টাকা দামের আছে, পাঁচ হাজার টাকা দামেরও আছে।
আয়নাল: আমাকে পাঁচ টাকারটাই দেখান।

দোকানদার আয়নালের কানে একটি প্লাস্টিকের খেলনা হেয়ারিং এইড গুঁজে দিলেন। আয়নাল আশ্চর্য হয়ে বললেন-
আয়নাল: এটার ভেতর তো কোনো যন্ত্রপাতিই নেই। এটা কাজ করে কীভাবে?
দোকানদার: সত্যি বলতে, এটা কোনো কাজ করে না। তবে আপনার কানে এটা দেখলে লোকজন এমনিতেই আপনার সঙ্গে প্রয়োজনের চেয়ে উঁচু গলায় কথা বলবে!

এসইউ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]