সপ্তাহের রসালাপ : বেশি বুদ্ধিতে বিপদ হয়!

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৩০ এএম, ০৪ জুন ২০২১ | আপডেট: ০৮:৩৪ এএম, ০৪ জুন ২০২১

সঞ্জু ও বাবলু একদিন জমিতে কাজ করছিল। একটু দূরেই একটি গাছের ছায়ায় বসে আরাম করছিল তাদের বন্ধু জাকির। সঞ্জু বলল বাবলুকে, ‘এই কড়া রোদে আমরা কাজ করছি। আর ওই ব্যাটা আয়েশ করে বসে আছে কেন?’ বাবলু বলল, ‘তাই তো! দাঁড়া, গিয়ে জিজ্ঞেস করে আসি।’

বাবলু গেল জাকিরের কাছে। গিয়ে বলল, ‘এই যে নবাব! আমরা কাজ করছি, আর আপনি হাত-পা গুটিয়ে বসে আছেন কেন?’

জাকির তার কথা শুনে হাসে। হাসি থামিয়ে বলল, ‘কারণ, আমি বুদ্ধিমান। তোরা বোকা।’ বাবলু পাল্টা প্রশ্ন করল, ‘কীভাবে?’ জাকির বলল, ‘দাঁড়া, দেখাচ্ছি।’

এরপর জাকির তার এক হাত একটি বড় পাথরের সামনে ধরে বলল, ‘আমার হাতে জোরে একটা ঘুষি মার তো দেখি।’ বাবলু যেই ঘুষি মারতে গেল, অমনই জাকির তার হাত পাথর থেকে সরিয়ে ফেলে। ঘুষি লাগে পাথরের গায়ে। ব্যথায় ককিয়ে ওঠে বাবলু।

জাকির হো হো করে হেসে ওঠে। হাসতে হাসতে বলে, ‘দেখলি তো, তোকে কেমন বোকা বানালাম। একেই বলে বুদ্ধি।’

বাবলু মন খারাপ করে চলে যায় সঞ্জুর কাছে। সেখানে গিয়ে মাথা নিচু করে বলে, ‘ও বসে আছে। কারণ ও বুদ্ধিমান।’ বাবলুর কথা শুনে সঞ্জু জানতে চায়, ‘ওর কেমন বুদ্ধি?’

বাবলুর চোখ এবার আনন্দে ঝলমল করে ওঠে। হাসি হাসি মুখে সে বলে, ‘দেখতে চাস?’ সঞ্জু বলে, ‘হুম, চাই।’ এ কথা শুনে বাবলু নিজের নাকের কাছে তার হাত রেখে সে বলে, ‘আমার হাতে একটা জোরে ঘুষি মার তো দেখি!’

লেখা ও ছবি: সংগৃহীত

প্রিয় পাঠক, আপনিও অংশ নিতে পারেন আমাদের এ আয়োজনে। আপনার মজার (রম্য) গল্পটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়। লেখা মনোনীত হলেই যেকোনো শুক্রবার প্রকাশিত হবে।

এসইউ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]