ভিপিকে না জানিয়ে ডাকসুর স্টাফ নিয়োগের আবেদন রাব্বানীদের!

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
প্রকাশিত: ০৮:৪০ পিএম, ০৬ এপ্রিল ২০১৯

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নুরুল হক নুরকে না জানিয়ে ডাকসুর বিভিন্ন পদে নয়জন স্টাফ নিয়োগ দেয়ার আবেদন করেছেন জিএস গোলাম রাব্বানী ও এজিএস সাদ্দাম হোসেন। রাব্বানীর দাবি, বিষয়টি নুর জানেন। এখন কেন অস্বীকার করছেন সে বিষয়ে ভিপির কাছে জানতে চাওয়া হবে বলে জানান তিনি।

গত ৩১ মার্চ ডাকসুর কোষাধ্যক্ষ বরাবর পাঠানো চিঠিতে বলা হয়, বিভিন্ন পদে নয়জন স্টাফ নিয়োগের আবেদন করা হয়। বিভিন্ন পদের মধ্যে একজন সহকারী কাম মুদ্রাক্ষরিক, কমনরুম বেয়ারার দুজন, অফিস সহায়ক দুজন, অ্যাথলেটিক্স বেয়ারার একজন, গার্ড দুজন এবং পরিছন্নকর্মী একজন নিয়োগের কথা আবেদনে উল্লেখ করা হয়।

কিন্তু এ আবেদন পাঠানোর সঙ্গে নিজের সংশ্লিষ্টতা নেই দাবি করে ভিপি নুরুল হক নুর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে লেখেন, ‘ডাকসুতে বিভিন্ন পদে চারজন কর্মরত আছেন। আমার জিএস-এজিএস সাহেব আরও ৯ জনের চাহিদাপত্র দিয়েছেন। অথচ বিষয়টি জানলাম না আমি। অবশ্য এসব বিষয়ে বাম হাত/ডান হাত থাকে তো, চুপেচাপে করাই ভালো! কারণ অনিয়ম হলে বাধাটা এই ভিপিই দেবে। সুতরাং হামলা-টামলা, নাটক-ফাটক, ফন্দিফিকির করে ভিপিকে সরানো জরুরি হয়ে পড়বে ‘

এ বিষয়ে নুর বলেন, এর আগে আইএমএল’র চিঠি ইন্টারনেটসহ বিভিন্ন বিষয়ে প্রশাসন বরাবর একাধিক চিঠি তারা দিয়েছেন। আমি নির্বাচিত ভিপি হলেও এ বিষয়ে তারা আমাকে কিছুই জানায়নি। ডাকসুর স্টাফ নিয়োগে আমাকে না জানিয়ে চিঠি দেয়া কতটুকু যুক্তিযুক্ত? এর বৈধতাই বা কী?

জিএস গোলাম রাব্বানী বলেন, ‘নুর বিষয়টি জানেন। কেননা, আবেদনপত্রের অপর পৃষ্ঠায় তার স্বাক্ষর রয়েছে। তিনি পুরো বিষয়টি না দিয়ে শুধু একটি অংশ সংযোজন করেছেন। আমি বিষয়টি নিয়ে তাকে ধরব।’

এমএইচ/জেএইচ/এমকেএইচ

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]

আপনার মতামত লিখুন :