এবার থানার ভেতরেই সংঘর্ষ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা
প্রকাশিত: ১২:০৯ পিএম, ২৫ নভেম্বর ২০১৭

অভ্যন্তরীন কোন্দলের জের ধরে সাতক্ষীরা কলারোয়া উপজেলা আ.লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে দিনভর দফায় দফায় সংঘর্ষে পুলিশসহ কমপক্ষে ১০ আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ঘটনাস্থলে দাঙ্গা পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এতে উপজেলা সদরে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

শনিবার সকাল ১০টার দিকে প্রথমে উপজেলা পরিষদ চত্বরে উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফিরোজ আহম্মেদ স্বপন ও সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম লাল্টুর মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এরপর বেলা ৩টার দিকে পুনরায় কলারোয়া থানার অভ্যন্তরে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে পুলিশের দুই এএসইসহ কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়েছেন। তাদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

কলারোয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফিরোজ আহমেদ স্বপন বলেন, লাল্টু গ্রুপের সন্ত্রাসী বাহিনী আমাকে অবরুদ্ধ করে রাখে। নেতাকর্মীদের মারধর করে আহত করেছে। পরবর্তীতে থানা অভ্যন্তরেও হামলা চালায় লাল্টু গ্রুপের সন্ত্রাসী বাহিনী।

satkhira

তবে এমন অভিযোগ অস্বীকার করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম লাল্টু বলেন, এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি। এটা ফিরোজ আহমেদ স্বপনের কারসাজি। তার সন্ত্রাসী বাহিনী আমার নেতাকর্মীদের উপর হামলা চালিয়ে আহত করেছে। থানা অভ্যন্তরে তারাই পুনরায় হামলা চালিয়েছে।

কলারোয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিপ্লব কুমার দেবনাথ জানান, বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ ইউনেস্কো কর্তৃক স্বীকৃতি পাওয়ায় উপজেলা পরিষদ চত্বরে সরকারিভাবে অনুষ্ঠান পালিত হচ্ছিল। এসময় পাল্টাপাল্টি বক্তব্য দেয়াকে কেন্দ্র করে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফিরোজ আহমেদ স্বপন ও সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম লাল্টুর কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।

আকরামুল ইসলাম/এমএএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :