চার ছেলের বিরুদ্ধে বাবা হত্যার অভিযোগ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি যশোর
প্রকাশিত: ০৮:৪৭ এএম, ১০ জানুয়ারি ২০১৮ | আপডেট: ০৮:৫৪ এএম, ১০ জানুয়ারি ২০১৮
চার ছেলের বিরুদ্ধে বাবা হত্যার অভিযোগ

যশোরের কেশবপুরে পৈত্রিক জমি আত্মসাতে ব্যর্থ হয়ে নিজের বাবাকে বালিশ চাপা দিয়ে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ উঠেছে চার ছেলের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় চার ভাইয়ের বিরুদ্ধে কেশবপুর থানায় অভিযোগ করেছেন ছোট ভাই।

নিহত তমেজ উদ্দিন শেখ (৭০) কেশবপুর উপজেলার সন্যাসগাছা গ্রামের বাসিন্দা।

তমেজ উদ্দিন শেখের ছোট ছেলে মিজানুর রহমান এজাহারে উল্লেখ করেছেন, পৈত্রিক জমি আত্মসাতে ব্যর্থ হয়ে ৮ জানুয়ারি বাবা তমেজ উদ্দিন শেখকে শ্বাসরোধে হত্যা করেছেন ভাই ফজলুর রহমান, ইউনুস আলী, বজলুর রহমান ও নজরুল ইসলাম।

এজাহারে কারণ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে, চার ভাই পৈত্রিক জমি থেকে মিজানুর রহমানকে বঞ্চিত করে আসছিল। পূর্বেই কিছু জমি বাবাকে ভুল বুঝিয়ে দলিল করে নেয় চার ভাই। ভিটাবাড়িসহ বাকি জমি আত্মসাৎ করার জন্য চার ভাই বাবাকে জোরপূর্বক তার (মিজানুর রহমান) বাড়ি থেকে বড় ভাই ফজলুর রহমান শেখের বাড়িতে নিয়ে যায়। এরপর বাকি জমির দলিলে বাবার স্বাক্ষর করাতে ব্যর্থ হয়।

সোমবার বিকেলে ফজলুর রহমান শেখের বসত ঘরে পরিকল্পিতভাবে বালিশ চাপা দিয়ে তমেজ উদ্দিন শেখকে হত্যা করে চার ছেলে। পরে তড়িঘড়ি করে বাবার মরদেহ দাফনের চেষ্টা চালায় তারা। কিন্তু এতে বাধা দেয় ছোট ছেলে। তমেজ উদ্দিনের মৃত্যুর ঘটনা রহস্যজনক হওয়ায় মঙ্গলবার কেশবপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ছোট ছেলে মিজানুর রহমান।

কেশবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (চলতি দায়িত্ব) শাহাজান আহম্মেদ জানান, তমেজ উদ্দিনের মৃত্যুর বিষয়ে ছোট ছেলে সন্দেহপোষণ করায় সঠিক কারণ নির্ণয়ে মরদেহ মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

মিলন রহমান/এফএ/আইআই