অবশেষে সুন্দরবনে যাচ্ছে মদনটাক পাখিটি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ঝিনাইদহ
প্রকাশিত: ০৯:২৮ পিএম, ৩১ জানুয়ারি ২০১৯

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় আটক বিরল প্রজাতির মদনটাক পাখিটিকে অবশেষে উদ্ধার করেছে বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগ খুলনার একটি ইউনিট। বৃহস্পতিবার বিকেলে পাখিটি উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধারকারীরা জানিয়েছে, পাখিটিকে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য খুলনার বন্যপ্রাণী উদ্ধার ও পুনর্বাসন কেন্দ্র রাখা হবে। এর পর সুস্থ হলে মূল আবাসস্থল সুন্দরবনে অবমুক্ত করা হবে।

গত সোমবার (২৮ জানুয়ারি) শৈলকুপা উপজেলার দামুকদিয়া গ্রমের একটি গাছ থেকে ফাঁদ পেতে বিরল প্রজাতির মদনটাক পাখিটি ধরে স্থানীয়রা। এরপর রশি দিয়ে বেঁধে পাখিটি গ্রামের বিপুল মোল্লা তার বাড়িতে রেখে দেন। তিনি পোষ মানানোর চেষ্টা করে করলে পাখিটি ক্রমেই অসুস্থ হয়ে পড়ে। বুধবার বনবিভাগের দৃষ্টি আকর্ষণ করে পাখিটি উদ্ধারের আহ্বান জানিয়ে দামুকদিয়া গ্রামের আবির হাসান নামে এক যুবক ভিডিওসহ ফেসবুকে পোস্ট করেন । যা বনবিভাগসহ গণমাধ্যমকর্মীদের নজরে আসে।

এরপর বৃহস্পতিবার বিকেলে খুলনা থেকে বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের পরিদর্শক রাজু আহমেদের নেতৃত্বে একটি টিম পাখিটি উদ্ধারে আসে। ছয় সদস্যের এই টিমে পরিদর্শক ছাড়াও আবু তালেব নামে একজন বনপ্রহরী, বিকাশ বড়ুয়া ও বাপ্পা মল্লিক নামে দুইজন জুনিয়র ওয়াল্ড লাইফ স্কাউট, মাহবুব আলম নামে নৌযান চালকসহ ছয়জন ছিলেন। উদ্ধারকারীরা বিকেল থেকে প্রায় সন্ধ্যা পর্যন্ত স্থানীয় বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষের সঙ্গে কথা বলেন এবং পাখিটি নিরাপদে উদ্ধার করেন।

বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের পরিদর্শক রাজু আহমেদ জানান, পাখিটির শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য পাখিটিকে বন্যপ্রাণী উদ্ধার ও পুনর্বাসন কেন্দ্র খুলনায় রাখা হবে। এরপর সুস্থ হলে সুন্দরবনে অবমুক্ত করা হতে পারে।

আরএআর/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :