ভাইয়ের পরিবর্তে কারাগারে ভাই

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা
প্রকাশিত: ০৫:০৩ পিএম, ০২ মে ২০১৯

ভাইয়ের পরিবর্তে আসামি সেজে হাজিরা দিয়ে সাতক্ষীরা আদালতে জামিনের আবেদন জানান রিপন হুসাইন (২৫)। আদালত জামিনের আবেদন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠান। বর্তমানে ‘প্রক্সি’ আসামি রিপন হুসাইন সাতক্ষীরা কারাগারে রয়েছেন।

রিপন হুসাইন সাতক্ষীরার পাটকেলঘাটা থানার কুমিরা ইউনিয়নের রাঢ়ীপাড়া গ্রামের শেখ রেজাউল করিমের ছেলে। মূল আসামি তার চাচাতো ভাই শেখ আজিবার হোসেনের ছেলে শেখ মনিরুল ইসলাম (২৬)।

কুমিরা ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য শফিকুল ইসলাম বলেন, বরিশালের একটি ইটভাটায় শ্রমিকের কাজ করছেন শেখ মনিরুল ইসলাম। বর্তমানে সেখানেই রয়েছেন তিনি। এক বছর আগে তাদের পারিবারিক বিরোধকে কেন্দ্র করে মারামারির একটি ঘটনায় মামলা হয়। মামলার আসামি শেখ মনিরুল ইসলাম। মামলায় আদালতে হাজিরা না দেয়ায় শেখ মনিরুল ইসলামের নামে ওয়ারেন্ট জারি করেন আদালত। ২৯ এপ্রিল সোমবার আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন জানান মনিরুলের চাচাতো ভাই শেখ রেজাউল করিমের ছেলে রিপন হুসাইন। আদালত জামিনের আবেদন নামঞ্জুর করে রিপন হুসাইনকে কারাগারে পাঠান। বর্তমানে শেখ মনিরুল ইসলামের পরিবর্তে সাজানো আসামি রিপন হুসাইন কারাগারে রয়েছেন।

কুমিরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম জাগো নিউজকে বলেন, জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে তাদের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছিল। এরপর চাচাতো ভাই নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে মামলা করেন। শেখ আজিবার হোসেন, তার স্ত্রী ও তিন ছেলে শেখ মনিরুল ইসলাম, শেখ তরিকুল ইসলাম ও শেখ জহিরুল ইসলামকে মামলার আসামি করা হয়। ওই মামলায় আদালতে হাজিরা না দেয়ায় দুই আসামি শেখ মনিরুল ইসলাম ও তরিকুল ইসলামের নামে ওয়ারেন্ট জারি হয়। আদালতে শেখ মনিরুল ইসলামের পরিবর্তে চাচাতো ভাই রিপন হুসাইনকে হাজির করে জামিনের আবেদন জানানো হয়। একই সঙ্গে আদালতে জামিনের আবেদন জানান তরিকুল ইসলামও। আদালত জামিন নামঞ্জুর করে তাদের কারাগারে পাঠান। বর্তমানে দুই আসামির মধ্যে রিপন হুসাইন ‘প্রক্সি’ আসামি হিসেবে কারাগারে রয়েছেন।

এ বিষয়ে কারাগারে আটক রিপন হুসাইনের ভাই শিক্ষক জাহাঙ্গীর আলম লিটন বলেন, এ বিষয়ে আমি কিছু জানি না। কিছু বলতে পারব না।

সাতক্ষীরা কারাগারের জেলার তুহিন কান্তি খান জাগো নিউজকে বলেন, পাটকেলঘাটা থানার জিআর ৪৯/১৮ ও টিআর ৩০১/১৮ মামলায় শেখ মনিরুল ইসলাম ও তরিকুল ইসলাম কারাগারে রয়েছেন। গত ২৯ এপ্রিল সোমবার সন্ধ্যায় তাদের আদালত থেকে কারাগারে আনা হয়।

আকরামুল ইসলাম/এএম/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :