চলে গেলেন সিরাজগঞ্জের বাউলশিল্পী ঠান্ডু বয়াতি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সিরাজগঞ্জ
প্রকাশিত: ০৪:৩১ এএম, ০৮ মে ২০১৯

না ফেরার দেশে চলে গেলেন সিরাজগঞ্জের গানের পাখি বাউল ঠান্ডু বয়াতি। মঙ্গলবার সিরাজগঞ্জ পৌর এলাকার কাটাওয়াবদা এলাকার নিজ বাড়িতে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

তার ছেলে আলম বয়াতি এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, কয়েকদিন ধরে তার বাবা অসুস্থ ছিলেন। মঙ্গলবার জোহরের আজানের পর তিনি বেশি অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে চিকিৎসকের কাছে নেয়ার আগেই মৃত্যুবরণ করেন।

মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে সাংস্কৃতিক অঙ্গনের মানুষ, ভক্ত ও গানের শিষ্যরা তার বাড়িতে ভিড় জমায়। খবর পেয়ে সিরাজগঞ্জ সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ গৌর, সিরাজগঞ্জ বাউল একাডেমির সাধারণ সম্পাদক সঞ্জীব সরকার তার পরিবারকে সান্ত্বনা দেন। বাদ মাগরিব সিরাজগঞ্জ শহরের মালশাপাড়া কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন করা হয়।

শিল্পী ঠান্ডু বয়াতির মৃত্যুতে জেলা কালচারাল অফিসার মাহমুদুল হাসান লালন, সিরাজগঞ্জ সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি হেলাল আহমেদ, সিরাজগঞ্জ সাংস্কৃতিক ফোরামের সভাপতি জান্নাত আরা তালুকদার হেনরি, সিরাজগঞ্জ সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ গৌর, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ইমরান মুরাদ, সিরাজগঞ্জ নাট্য ফেডারেশনের সভাপতি হীরক গুণ ও সাধারণ সম্পাদক সাইদুর রহমান ভোলা গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।

সিরাজগঞ্জের বাউল সঙ্গীতের একজন নিবেদিত প্রাণ ছিলেন ঠান্ডু বয়াতি। মঞ্চের পাশাপাশি তিনি হাটে, ঘাটে মাঠে ময়দানে গান গেয়েছেন। গান গেয়ে অর্থ তুলে জীবিকা নির্বাহ করতেন তিনি।

ইউসুফ দেওয়ান রাজু/বিএ