ছয় স্ত্রীকেই তালাক দেয়ায় ছেলের সঙ্গে ঝগড়া হয়েছিল বাবার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি টাঙ্গাইল
প্রকাশিত: ১০:১১ এএম, ১১ জুন ২০১৯

টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলার টেঙ্গুরিয়াপাড়া এলাকার বাবা খোরশেদ আলমকে (৭০) খুনের অভিযোগ উঠেছে ছেলে মাসুমের বিরুদ্ধে। এ ঘটনার পর থেকে ছেলে পলাতক রয়েছেন। সোমবার দুপুরে ওই গ্রামের বিল থেকে নিহত বাবার মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, খোরশেদ আলমের তিন ছেলের মধ্যে দুই ছেলে প্রবাসী। আর অভিযুক্ত ছেলে মাসুম (৪০) বাড়িতে থাকতো। এছাড়াও মাসুম ইতোমধ্যেই ৬টি বিয়ে করে এবং সবগুলোই তালাক দেয়। এ নিয়ে নিহত বাবা খোরশেদ আলমের সঙ্গে ছেলে মাসুমের ঝগড়া লেগেই থাকতো।

হঠাৎ সোমবার সকালে বাবা খোরশেদ আলমের মরদেহ বিলের মধ্যে পাওয়া যায়। তাদের অভিযোগ, পরিবারের অন্য কোনো সদস্য বাড়িতে না থাকার সুযোগে ছেলে মাসুম বাবা খোরশেদ আলমকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর বিলের মধ্যে মরদেহ ফেলে দিয়েছে। এছাড়াও ঘটনার পর থেকে মাসুম পলাতক রয়েছে।

বিষযটি নিশ্চিত করে বাসাইল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম তুহীন আলী জানান, নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সোমবার বিকেলে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের অভিযুক্ত ছেলে পলাতক রয়েছে। এঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও জানান তিনি।

টগর/এমএএস/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :