প্রতিবেশী তরুণীকে ধর্ষকের হাতে তুলে দিলেন গৃহবধূ

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি সাভার (ঢাকা)
প্রকাশিত: ০৫:২২ পিএম, ১৯ জুন ২০১৯

সাভারের আশুলিয়ার ধনাইদে বাড়ি থেকে তরুণীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করা হয়েছে। ধর্ষণের শিকার তরুণীর স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান-স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে।

এ ঘটনায় বুধবার ধর্ষণের শিকার তরুণীর মা বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় মামলা করেছেন। পরে অভিযান চালিয়ে ধর্ষককে সহায়তায় করায় এক নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

ভুক্তভোগী তরুণীর মা বলেন, সোমবার দুপুরে আমি বাসার বাইরে ছিলাম। এ সুযোগে পাশের বাড়ির ভাড়াটিয়া রাবেয়া আক্তার (৩২) আমার মেয়েকে ডেকে নিয়ে যায়। পরে প্রতিবেশী মো. জামশেদের (২০) বাসার করলা কেটে দেয়ার জন্য নিয়ে যায়। জামশেদের রুমের মধ্যে মেয়েকে ঢুকিয়ে দিয়ে বাইর থেকে দরজা বন্ধ করে দেয় রাবেয়া। এরপর জামশেদ আমার মেয়েকে ধর্ষণ করে। বাসায় এসে মেয়ের কাছ থেকে বিস্তারিত ঘটনা জানতে পারি আমি। এ ঘটনায় আমি মামলা করেছি। মামলার আসামিরা হলেন- গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলার ভাঙাবুনিয়া গ্রামের মো. আব্দুল হান্নানের ছেলে মো. জামশেদ ও একই উপজেলার নাটেরহাট গ্রামের মো. সিদ্দিকের স্ত্রী রাবেয়া বেগম।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে আশুলিয়া থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) রাম কৃষ্ণ দাস বলেন, প্রাথমিকভাবে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। ঘটনায় জড়িত রায়েবাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আগামীকাল বৃহস্পতিবার রিমান্ড আবেদন করে তাকে আদালতে পাঠানো হবে। ধর্ষণে জড়িত জামশেদ পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

এএম/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :