তীব্র গরমে প্রাণিকুলও অতিষ্ঠ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা
প্রকাশিত: ০৬:১৩ পিএম, ১৯ জুন ২০১৯

টানা কয়েক দিনের তীব্র গরমে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। তীব্র গরমে অতিষ্ঠ হয়ে পড়া প্রাণিকুলও খুঁজছে একটু ঠান্ডা ও ছায়াময় স্থান। পুকুরের পানিতে নেমে শরীর ডুবিয়ে দিচ্ছে প্রাণিকুল। বুধবার বেলা ১১টার দিকে সাতক্ষীরার তালা সদরের শিবপুর এলাকায় এমন চিত্র দেখা যায়।

অন্যদিকে গরমের হাত থেকে বাঁচতে ছাতা নিয়ে বাইরে বের হচ্ছে মানুষ। বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছেন না অনেকে। গরমে বিপাকে পড়ছে বিভিন্ন স্কুলের শিশু শিক্ষার্থীরাও।

আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে- তাপমাত্রা আরও বাড়বে। তবে ২-৩ দিনের মধ্যে তাপমাত্রা স্বাভাবিক হওয়ার পাশাপাশি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

satkhira02

শহরের ঋশিল্পী এলাকার আশিকুর রহমান বাসা থেকে বের হয়েছেন ছাতা নিয়ে। তিনি বলেন, গরমে মানুষ ঘর থেকে বের হতে পারছে না। বিশেষ প্রয়োজন বের হওয়ায় ছাতা নিয়ে বের হয়েছি।

একইভাবে ঘর থেকে ছাতা নিয়ে বের হয়েছেন শহরের তালতলা এলাকার রাশিদা বেগম। তার সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, গরমের কারণেই ছাতা নিয়ে বের হয়েছেন।

শহরের তালতলা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিশু শিক্ষার্থীদের বিদ্যালয়ের টিউবওয়েলে মাথা ভেজাতে দেখা যায়। কেউ বা তৃষ্ণায় পানি পান করছেন। শিশুরা জানায়, তীব্র গরমে ক্লাসে বসতে পারছে না তারা।

satkhira02

তালা সদরের খানপুর গ্রামের আব্দুল গফুর সরদার বলেন, গরমের কারণে বিপাকে পড়েছে সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ। তীব্র গরম হলেও এরই মধ্যে জীবিকার তাগিদে বিভিন্ন ধরণের কাজ করতে হচ্ছে। রাতের বেলাতেও একই রকম গরম। দিনের বেলা গরমের মাত্রা আরও বাড়ছে।

এদিকে সাতক্ষীরা আবহাওয়া অধিদফতরের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জুলফিকার আলী জাগো নিউজকে বলেন, গতকাল মঙ্গলবারের চেয়ে আজ বুধবার তাপমাত্রা আরও বেশি। সকাল ৯টায় ৩৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। তাপমাত্রা আরও বাড়বে। তবে ২-৩ দিনের মধ্য তাপমাত্রা কমে স্বাভাবিক পরিস্থিতিতে ফিরে আসবে। সেই সঙ্গে বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

আকরামুল ইসলাম/আরএআর/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :