তালাক দেয়ায় অফিসে ঢুকে স্ত্রীকে ছুরিকাঘাত

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ঝিনাইদহ
প্রকাশিত: ০৮:২৬ এএম, ২৫ জুন ২০১৯

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে সাবেক স্বামীর ছুরিকাঘাতে একটি বাড়ি একটি খামার (পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক) প্রকল্পের এক কর্মী জখম হয়েছেন। এ ঘটনায় আয়াতুল্লাহ বেহেস্তী নামের ওই যুবককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। আহত নারী শৈলকুপা উপজেলার মনোহরপুর গ্রামের আমিরুল ইসলামের মেয়ে জান্নাতুল নাহার।

সোমবার কালীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের মধ্যেই এ ঘটনা ঘটে। আহত জান্নাতুলকে কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আটক আয়াতুল্লাহ বেহেস্তী চাপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবপুর এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে।

ওই অফিসের আরেক কর্মী পলাশ কুমার জানান, বেলা সাড়ে ১১টার দিকে আয়াতুল্লাহ বেহেস্তী জান্নাতুল নাহারের সঙ্গে অফিসে দেখা করতে আসেন। এক পর্যায়ে তারা অফিসের বাইরে বারান্দায় গেলে জান্নাতুলকে ছুরি দিয়ে মুখে, পিঠে আঘাত করেন। পরে অফিসের লোকজন বেরিয়ে এসে আয়াতুল্লাহকে আটক করে পুলিশে দেন ও জান্নাতুল নাহারকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন।

আহত জান্নাতুল নাহার জানান, গত ৭ বছর আগে তাদের বিয়ে হয়। কিন্তু বিয়ের পর থেকে নানাভাবে নির্যাতনের কারণে চলতি মাসে তিনি আয়াতুল্লাহকে ডিভোর্স দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে সে অফিসে আসে এবং বাগবিতণ্ডার এক পর্যায়ে ছুরি দিয়ে তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে আঘাত করে।

কালীগঞ্জ থানার এসআই দেলোয়ার হোসেন জানান, ছুরি মারা যুবককে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। আহত জান্নাতুল নাহারকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ থানা পুলিশের ওসি ইউনুচ আলী জানান, এ ঘটনায় জান্নাতুল নাহারের বাবা সন্ধ্যায় থানায় মামলা করেছেন।

আব্দুল্লাহ আল মাসুদ/এফএ/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :