সহপাঠীকে গর্ভবতী : রিমান্ড শেষে কারাগারে শিঞ্জন রায়

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক খুলনা
প্রকাশিত: ১০:০৫ পিএম, ২০ আগস্ট ২০১৯

খুলনার একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সহপাঠী প্রেমিকাকে ধর্ষণ এবং সাত মাসের গর্ভবতী করার মামলায় গ্রেফতার খুলনার কর কমিশনার প্রশান্ত কুমার রায়ের ছেলে শিঞ্জন রায়কে রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মঙ্গলবার বিকেলে একদিন রিমান্ড শেষে আদালতে নেয়া হলে খুলনার মুখ্য মহানগর হাকিম আদলতের ম্যাজিস্ট্রেট মো. শাহীদুল ইসলাম তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

সোনাডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মমতাজুল হক জানান, জিজ্ঞাসাবাদে শিঞ্জন রায় তার প্রেমিকার সঙ্গে স্বামী-স্ত্রী হিসাবে বসবাস করার কথা স্বীকার করেছেন। এছাড়া মামলার অনেক আলামত জব্দ করা হয়েছে। আর স্বামী-স্ত্রী হিসেবে দেশের বিভিন্ন স্থানে তাদের ভ্রমণ করার প্রমাণও পাওয়া গেছে।

তিনি আরও জানান, যেসব বাড়িতে তারা স্বামী-স্ত্রী হিসেবে বসবাস করত তারাই পুলিশের কাছে সাক্ষ্য দিয়েছে, শিঞ্জন রায় ও তার প্রেমিকাকে তারা স্বামী-স্ত্রী হিসাবে বসবাসের জন্য ঘর ভাড়া দিয়েছিলেন। এছাড়া শিঞ্জন রায়ের প্রেমিকার এক বান্ধবীর কাছ থেকে সম্প্রতি কুয়াকাটা ভ্রমণের কিছু ছবি পুলিশ জব্দ করে আদালতে জমা দিয়েছে।

পুলিশ হেফাজতে সব স্বীকার করলেও আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিতে রাজি হননি শিঞ্জন রায়।

তবে ওসি মমতাজুল হক জানান, এই মামলার যা প্রমাণাদি পাওয়া গেছে তাতে স্বীকারোক্তির কোনো প্রয়োজন নেই। তিনি বলেন, সব থেকে বড় প্রমাণ মেয়েটি সাত মাসের গর্ভবতী, যা দৃশ্যমান এবং শিঞ্জন রায়ও তা অস্বীকার করছেন না।

এদিকে পুলিশ এই মামলার বাদীর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছে বলেও জানান তিনি।

আলমগীর হান্নান/এমবিআর/এমএস