৪ শিশুকে ধর্ষণ করলেন ৫৫ বছরের বৃদ্ধ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি বগুড়া
প্রকাশিত: ১০:০০ পিএম, ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

জলপাই খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে চার শিশুকে ধর্ষণ করেছেন জয়নাল আবেদীন (৫৫) নামে এক ভ্যানচালক। এ ঘটনায় তাকে আটক করা হয়েছে। সেই সঙ্গে নির্যাতিত চার শিশুকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বগুড়ার ধুনট উপজেলায় এ ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার মথুরাপুর বাজার এলাকা থেকে জয়নালকে আটক করা হয়। আটকের পর চার শিশুকে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছেন ওই বৃদ্ধ ভ্যানচালক। আটক জয়নাল আবেদীন ধুনট উপজেলার বাসিন্দা।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, জয়নাল আবেদীনের স্ত্রী ঢাকায় একটি পোশাক কারখানায় চাকরি করেন। এলাকায় ভ্যান চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করেন জয়নাল। ধর্ষণের শিকার ওই চার শিশু জয়নালের প্রতিবেশী। চার শিশুর মধ্যে দুজন তৃতীয় শ্রেণির ও দুজন প্রথম শ্রেণির ছাত্রী।

শুক্রবার দুপুরে তৃতীয় শ্রেণির দুই ছাত্রী জয়নালের বাড়িতে জলপাই কুড়াতে যায়। এ সময় বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে ওই দুই শিশুকে জলপাই খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে ঘরের ভেতর নিয়ে ধর্ষণ করেন জয়নাল।

রোববার দুপুরে প্রথম শ্রেণির দুই ছাত্রী জয়নালের বাড়িতে জলপাই কুড়াতে যায়। এ সময় একই কৌশলে ওই দুই শিশুকেও ধর্ষণ করেন তিনি। এ সময় তারা কান্নাকাটি করলে ঘর থেকে বের করে দেন জয়নাল।

পরে বাড়িতে গিয়ে মা-বাবাকে বিষয়টি জানায় চার শিশু। এরপর জয়নালের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানের কাছে যান চার শিশুর মা-বাবা। ইউপি চেয়ারম্যান হারুন-অর রশিদের অভিযোগের ভিত্তিতে জয়নাল আবেদীনকে আটক করে পুলিশ।

ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক অঙ্কিতা রব চৈতী বলেন, চার শিশুর শরীরে ধর্ষণের চিহ্ন আছে। তাদের প্রাথমিকভাবে চিকিৎসা চলছে।

এ বিষয়ে ধুনট থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইসমাইল হোসেন বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জয়নাল আবেদীন ধর্ষণের কথা সত্যতা স্বীকার করেছেন। চার শিশুকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ ঘটনায় দুটি মামলা করা হবে।

এএম/এমএস