খোকসায় আ.লীগের মনোনয়ন পেলেন শান্ত, বিএনপির রাজু

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কুষ্টিয়া
প্রকাশিত: ০২:৩০ পিএম, ২৯ নভেম্বর ২০২০

নানা নাটকীয়তার অবসান ঘটিয়ে খোকসা পৌরসভা নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগের সুপারিশকৃত বর্তমান মেয়র তারিকুল ইসলামকে হটিয়ে শেষ পর্যন্ত আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন আল মাছুম মুর্শেদ শান্ত।

স্থানীয় গ্রুপিংয়ের কারণে এর আগে বুধবার জেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বর্তমান মেয়র তারিকুল ইসলামের একক নাম প্রস্তাব করে কেন্দ্রে পাঠানো হয়। এ নিয়ে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের মধ্যে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।

বৃহস্পতিবার তারিকুল ইসলামসহ খোকসা উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আল মাছুম মুর্শেদ শান্ত দলীয় মনোনয়ন পেতে ফরম কেনেন।

শনিবার বিকেলে আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ডের সভা শেষে আল মাছুম মুর্শেদের নাম ঘোষণা করা হয়। দলটির কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে আল মাছুম মুর্শেদের মনোনয়নের বিষয়টি উল্লেখ করা হয়।

এদিকে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের (বিএনপি) পক্ষ থেকে খোকসা পৌরসভা নির্বাচনে মনোনয়ন পেয়েছেন খোকসা পৌরসভার পরপর দু’বারের নির্বাচিত পৌর মেয়র প্রয়াত আনোয়ার আহম্মেদ খান তাঁতাড়ীর ছেলে রাজু আহম্মেদ।

শনিবার দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে রাজুর মনোনয়নের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।

আল মাছুম মুর্শেদ দলীয় মনোনয়ন লাভ করায় শনিবার সন্ধ্যায় তার অনুসারী নেতা-কর্মীরা খোকসা পৌর এলাকায় খণ্ড খণ্ড মিছিল বের করেন।

আল মাছুম মুর্শেদ শান্ত জানান, প্রধানমন্ত্রী আমাকে দলীয় মনোনয়ন দিয়েছেন, এজন্য তার প্রতি খোকসাবাসী কৃতজ্ঞ। নৌকার জন্য নিজের জীবন দিতে রাজি। নির্বাচনে জেতার জন্য সকলের দোয়া ও সমর্থন কামনা করছি। দেশ ও জনগণের কল্যাণে কাজ করে যাওয়ার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন তিনি।

প্রথম ধাপের নির্বাচনে আগামী ২৮ ডিসেম্বর কুষ্টিয়ার খোকসা পৌরসভার ভোট গ্রহণের দিন নির্ধারণ করেছে নির্বাচন কমিশন। তফসিল অনুযায়ী ১ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন।

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ থেকে দলীয় মনোনয়ন কে পাচ্ছেন এ নিয়ে গত কদিন ধরে নানা জল্পনা কল্পনা চলতে থাকে।

সর্বশেষ হালনাগাদকৃত ভোটার তালিকা অনুযায়ী খোকসা পৌরসভার মোট ভোটার ১৪ হাজার ৯২৩ জন।

পৌরসভার বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, তৃতীয় শ্রেণির খোকসা পৌরসভায় নাগরিক তেমন কোনো সুযোগ-সুবিধা নেই। বিগত পাঁচ বছর পৌরসভার তেমন কোনো উন্নয়নও হয়নি।

আল-মামুন সাগর/এফএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]