পারিবারিক কলহের জেরে গৃহবধূর আত্মহত্যা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি চাঁদপুর
প্রকাশিত: ১০:০৩ পিএম, ০২ মার্চ ২০২১

চাঁদপুর হাইমচর উপজেলায় পারিবারিক কলহের জেরে গলায় ফাঁস দিয়ে নিশু বেগম (২১) নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছেন।

মঙ্গলবার (২ মার্চ) দুপুরে ছোট লক্ষ্মীপুর গ্রামের গাজি বাড়ি থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত নিশু বেগম ওই বাড়ির আবদুর রহমান গাজীর প্রবাসী ছেলে আবদুল মান্নান গাজীর (২৮) দ্বিতীয় স্ত্রী এবং ৩নং দক্ষিণ আলগী ইউনিয়নের পশ্চিম চর কৃষ্ণপুর গ্রামের তোফাজ্জল পাটোয়ারী মেয়ে।

স্থানীয়রা জানান, দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক কলহ চলে আসছিল এই পরিবারে। ভিকটিম নিশু ও তার শাশুড়ির সঙ্গে সব সময় ঝগড়া-বিবাদ লেগেই থাকত। ঘটনার দিন সকালেও শাশুড়ির সঙ্গে ঝগড়া হয় নিশুর।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন প্রতিবেশী জানান, শাশুড়ির সঙ্গে ঝগড়া শেষে নিজের আত্মীয় স্বজন ও স্বামীর সঙ্গে ফোনে কথা হয় নিশুর। এ সময় কারও কাছেই আশার বাণী না পেয়ে আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন বলে ধারণা করছেন তিনি।

ঘটনাটির পরে স্থানীয়দের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। কেউ বলছেন আত্মহত্যা, কেউবা হত্যা। গত ৮ থেকে ১০ দিন আগেও নিহতের শাশুড়ি তাকে শারীরিক নির্যাতন করেন বলে জানান স্থানীয়রা। এর আগে নিহত নিশুর স্বামী মান্নান গাজীর প্রথম স্ত্রীও শাশুড়ির অত্যাচারে তালাক নিয়ে বাবার বাড়ি চলে যেতে বাধ্য হন।

এদিকে নিহতের মা সালেহা বেগম ও পরিবারের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, তাদের মেয়েকে হত্যা করা হয়েছে এবং তারা এর সুষ্ঠু বিচার চান।

হাইমচর থানা পুলিশ পরিদর্শক সুব্রত কুমার সরকার বলেন, ‘আত্মহত্যার সংবাদ শুনে আমরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠিয়েছি। প্রাথমিকভাবে আত্মহত্যা বলেই মনে হচ্ছে। তবে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসলে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

নজরুল ইসলাম আতিক/এসজে/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]