উপবৃত্তির ফরম বাবদ নেয়া টাকা ফেরত পেলেন ছাত্রীরা

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি মির্জাপুর (টাঙ্গাইল)
প্রকাশিত: ০৮:৫৭ পিএম, ১২ এপ্রিল ২০২১

টাঙ্গাইলের মির্জাপুর মহিলা কলেজের ছাত্রীদের কাছ থেকে উপবৃত্তির ফরম বাবদ আদায়কৃত টাকা ফেরত দিয়েছে কলেজ কর্তৃপক্ষ।

সোমবার (১২ এপ্রিল) উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. হারুন অর রশিদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, মির্জাপুর মহিলা কলেজে এইচএসসি প্রথমবর্ষের তিন বিভাগে ২৬০ জন ও ডিগ্রি প্রথমবর্ষের ৩২ জন ছাত্রীকে উপবৃত্তির ফরম দেয়া হয়। ওই ফরম পূরণের পর কলেজ কর্তৃপক্ষ উপবৃত্তি পেতে অনলাইনে আবেদন জানাবে। তবে কোন কোন ছাত্রী উপবৃত্তি পাবে তার কোনো নিশ্চয়তা না থাকলেও যোগাযোগ ও অনলাইন খরচ বাবদ ২০০ টাকা করে নিয়েছিল কলেজ কর্তৃপক্ষ। এতে অভিভাবক ও ছাত্রীদের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।

এ বিষয়ে ৯ এপ্রিল অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কম-এ ‘তালিকার আগেই উপবৃত্তির টাকা আদায়’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। সংবাদটি উপজেলা প্রশাসনের নজরে আসলে নির্বাহী কর্মকর্তা মো. হাফিজুর রহমান ও মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা হারুন অর রশিদ কলেজের অধ্যক্ষকে ডেকে কারণ জানতে চান।
পরে অধ্যক্ষ হারুন অর রশিদ ছাত্রীদের কাছ থেকে নেয়া টাকা ফেরত দিবেন বলে জানান। রোববার থেকে ছাত্রীদের টাকা ফেরত দেয়া শুরু করে সোমবার শেষ করেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন ছাত্রী জানান, তাদের কাছ থেকে উপবৃত্তির ফরম বাবদ নেয়া ২০০ টাকা তারা ফেরত পেয়েছেন।

এ বিষয়ে মির্জাপুর মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ মো. হারুন অর রশিদ বলেন, ‘ছাত্রীদের কাছ থেকে উপবৃত্তির ফরম বাবদ ২০০ টাকা করে নেয়া হয়েছিল। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এবং মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার নির্দেশে তা ফেরত দেয়া হয়েছে।’

এসজে/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]