ধর্ষণের রফা টাকায়, ছাত্রলীগের হস্তক্ষেপে মামলা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ফরিদপুর
প্রকাশিত: ১২:১৯ এএম, ০৫ মে ২০২১

ফরিদপুরের সালথায় বিয়ের প্রলোভনে তরুণীকে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে ফেলা মাতুব্বর (৩১) নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে। পরে ওই তরুণী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে দুই লাখ টাকায় আপস করে গর্ভের সন্তান নষ্টের সিদ্ধান্ত চাপিয়ে দেয়ার অভিযোগ ওঠে স্থানীয় কতিপয় মাতুব্বর ও সমাজপতিদের বিরুদ্ধে।

এ নিয়ে সোমবার (৩ মে) ‘দু’লাখ টাকায় রফা হলো ধর্ষণের বিচার’ শিরোনামে জাগো নিউজে সংবাদ প্রকাশের পর জেলাজুড়ে বিষয়টি নিয়ে তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

সংবাদটি দেখে তাৎক্ষণিক জাগো নিউজের ফরিদপুর জেলা প্রতিনিধির সঙ্গে যোগাযোগ করেন ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তামজীদুল রশিদ চৌধুরী রিয়ান। এরপর তিনি সেটি ফরিদপুরের পুলিশ সুপার মো. আলিমুজ্জামান -এর নজরে আনেন।

পরে মঙ্গলবার (৪ মে) দুপুরে সালথা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আশিকুজ্জামানকে সঙ্গে নিয়ে ওই তরুণীর বাড়িতে গিয়ে তার খোঁজ খবর নেন জেলা ছাত্রলীগের নেতারা। এরপর অভিযুক্ত ফেলা মাতুব্বরসহ বেশ কয়েকজনকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে সালথা থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।

এছাড়া তামজীদুল রশিদ চৌধুরী রিয়ানের নির্দেশে সালথা উপজেলা ছাত্রলীগ ভুক্তভোগী তরুণীর বাড়ির আশপাশে স্বার্বক্ষণিক পাহারার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এবং ধর্ষণের শিকার ওই তরুণীর পরিবারের পাশে দাঁড়াতে স্থানীয় নেতাকর্মীদেরও অনুরোধ জানানো হয়েছে।

ভুক্তভোগীর পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর বিষয়ে জানতে চাইলে ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তামজীদুল রশিদ রিয়ান জাগো নিউজকে বলেন, ‘জাগো নিউজের মাধ্যমে জানতে পারি একটি অসহায় মেয়ে ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পরেও সালিশে মিমাংসা হয়েছে। এ কথা শুনে আমরা খুবই মর্মাতহ হয়েছি। এ সময় নিজ উদ্যোগেই পরিবারটির পাশে দাঁড়িয়ে তাকে সকল প্রকার সাহায্য করার সিদ্ধান্ত নিই। সে জন্যই আজ সালথায় গিয়ে মেয়েটি যাতে ন্যায়বিচার পায় সে ব্যবস্থা করেছি। তরুণীর পরিবারকে বলে এসেছি, সামনে আইনি প্রক্রিয়ায়ও সাহায্য লাগলে ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগ তাদের পাশে থাকবে।’

এ ব্যাপারে সালথা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আশিকুজ্জামান জাগো নিউজকে বলেন, ‘নারানদিয়া গ্রামের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। এজাহারভুক্ত একজনকে গ্রেফতারও করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারে অভিযান চালানো হচ্ছে। এ বিষয়ে বিস্তারিত আগামীকাল (বুধবার) সংবাদ সম্মেলন করে জানানো হবে।’

এমএইচআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]