ছেলের লাঠিপেটায় হাসপাতালে মা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ১০:১০ পিএম, ২৪ জুন ২০২১ | আপডেট: ১০:১১ পিএম, ২৪ জুন ২০২১

পাবনায় ছেলে ও ছেলের বউয়ের লাঠিপেটার শিকার হয়েছেন মিনতি বালা সরকার নামের এক বৃদ্ধা। তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বুধবার (২৩ জুন) রাতে পাবনার সুজানগর উপজেলার ভাঁয়না ইউনিয়নের ভাঁয়না গ্রামে এ। এ ঘটনার ছেলে ভূষণ কুমার সরকারের বিচার চেয়ে থানায় অভিযোগ দিয়েছেন মিনতি বালা সরকার।

বৃহস্পতিবার (২৪ জুন) তিনি এ অভিযোগ দেন।

হাসপাতালের বেডে শুয়ে বৃদ্ধা মিনতি বালা সরকার কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘ছেলেকে ১০ মাস গর্ভে রাখলাম, পৃথিবীর আলো দেখালাম। শৈশবে পিতৃহারা ছেলেকে কষ্ট করে বড় করলাম। নিজে না খেয়ে যাকে খাওয়ালাম সেই ছেলে বড় হয়ে অমানুষ হয়ে গেল।’

তিনি বলেন, ‘ছেলে তার বউকে সঙ্গে নিয়ে আমাকে মারধর করে। এ লজ্জার কথা কাকে বলব?’

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন জানান, অভিযুক্ত ভূষণ কুমার গোঁয়ার প্রকৃতির। তিনি কাউকে তোয়াক্কা করেন না। তিনি ও তার স্ত্রী মিলে বৃদ্ধা মাকে তুচ্ছ ঘটনায় মাঝে মধ্যেই নির্যাতন করেন।

বুধবার রাতে মিনতি বালাকে আবারো মারধর করেন ছেলে ও ছেলের বউ। পরে স্থানীয়রা তাকে সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

সুজানগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, ছেলের বিরুদ্ধে ভুক্তভোগী মা একটি অভিযোগ দিয়েছেন। তদন্ত করে এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আমিন ইসলাম/এসআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]