নির্বাচনের দিন পুলিশের গুলিতে আহত দেলুয়ারের মৃত্যু

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি ভৈরব (কিশোরগঞ্জ)
প্রকাশিত: ০২:৫৫ পিএম, ৩০ নভেম্বর ২০২১

কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে নির্বাচনী সহিংসতায় পুলিশের গুলিতে আহত দেলুয়ার (৩৬) মারা গেছেন। মঙ্গলবার সকালে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

দেলুয়ার কুলিয়ারচর পশ্চিম গোবরিয়া এলাকার মো. ইব্রাহিমের ছেলে।

রোববার কুলিয়ারচর ইউপি নির্বাচনে দক্ষিণ গোবরিয়া আবদুল্লাহপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ বাধলে পুলিশ কয়েক রাউন্ড গুলি ছোড়ে। এসময় দেলুয়ারসহ ৪ জন গুলিবিদ্ধ হন। গুরুতর আহত দেলুয়ারকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়। আজ ঢাকার হেলথ কেয়ার হাসপাতালে মারা যান তিনি।

বাকি আহতরা হলেন- রানা (৩৫), সাব্বির (১৭) ও আনোয়ার (২৮)। এরা বাজিতপুর জহিরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. সাইফুল ইসলাম বলেন, নিহত দেলুয়ার আমার কর্মী ছিল। নৌকার প্রার্থী এনামুল হকের কর্মীরা জোর করে ভোট ছাপাতে চাইলে সংঘর্ষের সৃষ্টি হয়। এ সময় পুলিশের গুলিতে সে গুরুতর আহত হয়ে আজ হাসপাতালে মারা যায়।

কুলিয়ারচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. গোলাম মোস্তফা জানান, ঘটনার দিন ওই কেন্দ্রে দুই পক্ষের সংঘর্ষ বাধলে পরিস্থিতি শান্ত করতে পুলিশ গুলি করতে বাধ্য হয়। এদিন দেলুয়ার আহত হয়েছে জানতাম কিন্তু মারা গেছে কিনা সে খবর এখনও পাইনি।

এফএ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]