নোয়াখালীতে র‍্যাবের হাতে ভুয়া চিকিৎসক আটক

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নোয়াখালী
প্রকাশিত: ০৮:৪৫ এএম, ২০ জানুয়ারি ২০২২

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে মো. সাদ্দাম হোসেন (২৮) নামে এক ভুয়া চিকিৎসককে আটক করেছে র‍্যাব। বুধবার (১৯ জানুয়ারি) গোপন সংবাদের ভিত্তিতে চৌমুহনী পৌরসভার উত্তর নাজিরপুর কাজী বাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়।

এ সময় তার কাছ থেকে একটি স্টেথোস্কোপি, ১০টি চশমা, একটি ভিশন কার্ড, ভুয়া পেসক্রিপশন, ভুয়া ভিজিটিং কার্ড, ভুয়া চিকিৎসা প্যাড ও দুটি সিমসহ একটি মোবাইল ফোন জব্দ করা হয়।

আটক সাদ্দাম হোসেন সূবর্ণচর উপজেলার ৫নং চরজুবলি ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের চরবগ্যা গ্রামের খলিল মিয়ার নতুন বাড়ির মো. খলিল উল্যার ছেলে।

তিনি বর্তমানে বেগমগঞ্জ উপজেলার চৌমুহনী পৌরসভার ১নং ওয়ার্ডের উত্তর নাজিরপুর কাজী বাড়ির বাসিন্দা।

মো. সাদ্দাম হোসেন একাডেমিক সার্টিফিকেটধারী নিবন্ধিত ডাক্তার বা সার্জন না হয়েও নিজেকে ডাক্তার পরিচয় দিয়ে শিশু, মেডিসিন ও চক্ষু রোগীদের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিলেন।

র‍্যাব-১১ (সিপিসি-৩) অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কোম্পানি কমান্ডার) খন্দকার মো. শামীম হোসেন বুধবার রাতে আটকের বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, আটক মো. সাদ্দাম হোসেনের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ মেডিকেল ও ডেন্টাল কাউন্সিল আইন ২০১০ এর ২৮(১)/২৯(২) তৎসহ পেনাল কোডের ৪১৯/৪৬৫ ধারায় বেগমগঞ্জ মডেল থানায় এজাহার দায়ের করা হয়েছে।

বেগমগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মীর জাহেদুল হক রনি জানান, আটক ভুয়া ডাক্তারকে দায়ের হওয়া মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হবে।

ইকবাল হোসেন মজনু/এফএ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]