সরিষাবাড়ীতে সহিংসতায় নিহতের ঘটনায় আটক ১২

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি জামালপুর
প্রকাশিত: ০৫:০৯ পিএম, ২৯ জানুয়ারি ২০২২

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে ভোলা শেখ (৬০) নিহতের ঘটনায় ১২ জনকে আটক করা হয়েছে।

শনিবার (২৯ জানুয়ারি) বিকালে পুলিশ সুপার নাছির উদ্দীন ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

আটককৃতরা হলেন, উপজেলার পিংনা ইউনিয়নের মৃত আজিজুর রহমানের ছেলে নূরু ফকির (৬০), রফিকুল ইসলামের ছেলে শাকিল (২২), মৃত সোলেমান মন্ডলের ছেলে মালেক (৩৫), মৃত আব্দুল মজিদের ছেলে আনোয়ার (৪২), মো. রতনের ছেলে খোকন (২৪), মৃত আব্দুল হাতেমের ছেলে রাসেল (৩২), আবুল হোসের ছেলে ওয়াসিম (৪৫), আবু বক্কর সিদ্দিকের ছেলে সোহেল রানা (৩৩), মৃত শাহজামালের ছেলে সাহেব আলী (৫৭), মো. রফিকুল ইসলাম রাঙ্গার ছেলে ইকবাল (২৮), আব্দুল কাদেরের ছেলে ফরহাদ (৩২) এবং কাজিপুর উপজেলার রুপসা বাজার এলাকার সোহরাব আলীর ছেলে শাহাদাত (৩২)।

এর আগে শনিবার (২৯ জানুয়ারি) বেলা ১১টার দিকে উপজেলার পিংনা ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের চর নলসন্ধ্যা গ্রামে সহিংসতার ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, ৩১ জানুয়ারি পিংনা ইউনিয়নের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ৩নং ওয়ার্ডের সদস্য প্রার্থী নুরুল ইসলাম (ফুটবল) ও প্রতিদ্বন্দ্বী সুজাত আলী সুরুর (মোরগ) লোকজনের মধ্যে বিরোধ চলছিল। শনিবার বেলা ১১টার দিকে পশ্চিম নলসন্ধ্যা চরে উভয়পক্ষের সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নুরুল ইসলামের সমর্থক ভোলা শেখ মারা যান।

পুলিশ সুপার নাছির উদ্দীন জাগো নিউজকে বলেন, এ ঘটনায় ১২ জনকে আটক করা হয়েছে। একই সঙ্গে নির্বাচনের সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে পুলিশ দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছে বলেও জানান তিনি।

মো. নাসিম উদ্দিন/এএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]