প্রেম প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় স্কুলছাত্রীকে পিটিয়ে জখম

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৮:৫৭ এএম, ১৯ মে ২০২২

প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় স্কুলছাত্রীকে পিটিয়ে জখম করেছে এক বখাটে। বুধবার (১৮ মে) বিকেল ৪টার দিকে মেয়েটি স্কুল থেকে নিজ বাড়ি ফেরার পথে সাতবাড়িয়া কলেজের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

আহত শিক্ষার্থী সাতবাড়িয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণির বাণিজ্য শাখার শিক্ষার্থী। অভিযুক্ত ফাহাদ মোল্লা সাতবাড়িয়া ইউনিয়নের ফকিরপুর গ্রামের ফারুক মোল্লার ছেলে। তাকে আসামি করে সুজানগর থানায় মামলা করা হয়েছে।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন স্কুলছাত্রী জানায়, ফাহাদ মোল্লা প্রায়ই প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে তাকে উত্ত্যাক্ত করে আসছিল। সে ওই প্রস্তাব প্রত্যাখান করায় তার প্রতি ক্ষিপ্ত ছিল ফাহাদ। বুধবার সে বান্ধবীদের সঙ্গে বিদ্যালয় ছুটির পর নিজ বাড়ি যাচ্ছিল। পথে সাতবাড়িয়া কলেজের সামনে ফোহাদ মোল্লা তার পথ আটকায়। এ সময় আবারো প্রেমের প্রস্তাব দেয়। সে প্রত্যাখ্যান করলে ক্ষুব্ধ ফাহাদ তাকে টেনে-হেঁচড়ে হাতুড়ি দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে পিটিয়ে জখম করে। এ সময় তার চিৎকারে কলেজের শিক্ষক ও স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসেন। তারাই তাকে উদ্ধার করে সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. ফারজানা আক্তার বলেন, আঘাত গুরুতর হওয়ায় স্কুলছাত্রীকে হাসপাতালে ভর্তি রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

এ ঘটনায় বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আলাউদ্দিন বাদী হয়ে মো. ফাহাদ মোল্লাকে আসামি করে সুজানগর থানায় মামলা করেছেন।

সুজানগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল হান্নান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় মামলা হওয়ার পরপরই অভিযুক্ত ফাহাদ মোল্লাকে গ্রেফতার করতে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে।

সুজানগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রওশন আলী জানান, অন্যায়কারীকে ছাড় দেওয়া হবে না।

আমিন ইসলাম জুয়েল/এফএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]