ভুল করে তাহেরের অ্যাকাউন্টে ঢুকে যায় সোয়া ৩ কোটি টাকা, অতঃপর...

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গাইবান্ধা
প্রকাশিত: ০৮:৪৯ পিএম, ১১ আগস্ট ২০২২

গাইবান্ধায় ভুল অ্যাকাউন্টে তিন কোটি ২৫ লাখ টাকা চলে যাওয়ার রহস্য উন্মোচন করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে এতথ্য জানান জেলা পিবিআইয়ের পুলিশ সুপার এআরএম আলিফ।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, শনিবার (৬ জুলাই) ডাচ-বাংলা ব্যাংকের গাইবান্ধা শাখার এক কর্মকর্তা সোনালী ব্যাংক গাইবান্ধা প্রধান শাখায় তিন কোটি ২৫ লাখ টাকার চেক জমা দেন। ওই টাকা ডাচ-বাংলা ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ের একটি অ্যাকাউন্টে ট্রান্সফার না হয়ে ভুল বা ডিজিট পরিবর্তন হয়ে ঢাকার আল আমির ইন্টারন্যাশনালের স্বত্বাধিকারী মো. আবু তাহেরের হিসাব নম্বরে জমা হয়।

জমা হওয়া তিন কোটি ১০ লাখ টাকা আবু তাহের উত্তোলন করে বিভিন্ন অ্যাকাউন্টে ট্রান্সফার করেন। পরে পিবিআই গাইবান্ধা ও ঢাকার একটি টিম নোয়াখালী থেকে আবু তাহেরকে গ্রেফতার করে।

jagonews24

গ্রেফতার আবু তাহের রাঙ্গামাটির রাজস্থলী উপজেলার বাংগাল হালিয়া গ্রামের আব্দুস সহিদ মিয়ার ছেলে।

পুলিশ সুপার এআরএম আলিফ আরও জানান, আবু তাহের একজন আদম ব্যাপারী। মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ৩০ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়। ১৫ লাখ টাকা আমির ইন্টারন্যাশনাল ব্যাংক হিসাবে জমা আছে।

অবশিষ্ট দুই কোটি ৮০ লাখ টাকা উদ্ধারে ও প্রকৃত ঘটনা উদ্ঘাটনে পিবিআই তৎপরতা চালাচ্ছে বলেও জানান তিনি।

এক মাস আগে খোয়া যাওয়া সোয়া তিন কোটি টাকা সোনালী ব্যাংক গাইবান্ধা শাখার ম্যানেজার জাহিদুল ইসলাম গোপনেই সমাধানের চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। পরে গাইবান্ধা সদর থানায় একটি মামলা করেন। এরই পরিপ্রেক্ষিতে বুধবার (১০ আগস্ট) মামলার তদন্তভার গ্রহণ করে পিবিআই।

এসআর/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।