বাস থেকে মহাবিপন্ন উল্লুক উদ্ধার, যুবক কারাগারে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কুমিল্লা
প্রকাশিত: ০৯:৫৪ পিএম, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

পাচারের উদ্দেশ্যে পরিবহনের সময় যাত্রীবাহী বাস থেকে মহাবিপন্ন প্রাণী উল্লুক উদ্ধার করেছে গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। এ ঘটনায় জুয়েল রহমান সোহেল (২৭) নামের এক যুবককে গ্রেফতারের পর আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় জেলা ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাজেশ বড়ুয়া জাগো নিউজকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। আটক সোহেল খুলনা সিটি করপোরেশনের ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের হাফিজনগর এলাকার মো. মজিবুর রহমানের ছেলে।

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রোববার গভীর রাতে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাজন কুমার দাসের নির্দেশে গোয়েন্দা পুলিশ মিয়া বাজার এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে। এক পর্যায়ে ইম্পেরিয়াল এক্সপ্রেস নামে একটি যাত্রীবাহী বাসে তল্লাশি চালিয়ে উল্লুকটি জব্দ করা হয়।

ওসি আরও বলেন, আটক সোহেলের দাবি, উল্লুকটিকে তিনি ১৬ হাজার টাকায় বান্দরবানের এক ব্যক্তির কাছ থেকে কিনেছেন। এটি খুলনা-সাতক্ষিরা সীমান্ত দিয়ে ভারতীয় পাচারকারীদের হাতে বেশি দামে বিক্রি করাই ছিল তার উদ্দেশ্য। প্রাথমিকভাবে সোহেলকে বন্যপ্রাণী পাচারকারী দলের সক্রিয় সদস্য হিসেবে সন্দেহ করা হচ্ছে। উল্লুকটিকে কুমিল্লা বন বিভাগ কর্মকর্তাদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ আইনে মামলা হয়েছে। বিকেলে আদালতের মাধ্যমে তাকে কুমিল্লা কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান এ ডিবি কর্মকর্তা।

কুমিল্লা বন বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলী জাগো নিউজকে বলেন, উল্লুক মহাবিপন্ন প্রাণী। বর্তমানে সারা দেশে মাত্র ২৫০টি উল্লুক রয়েছে। এসব প্রাণী ভারত হয়ে মধ্যপ্রাচ্যর ধনীদের ব্যক্তিগত চিড়িয়াখানায় চলে যায়। পাচারে যারা হাতবদলে অংশ নেন তারা মোটা অঙ্কের টাকা পান। উদ্ধার হওয়া উল্লুকটি শিগগির বনে অবমুক্ত করা হবে।

জাহিদ পাটোয়ারী/এসজে/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।