শিশুর শ্লীলতাহানির অভিযোগে চা দোকানিকে গণপিটুনি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ঠাকুরগাঁও
প্রকাশিত: ০৬:০৪ পিএম, ০৪ অক্টোবর ২০২২
চা বিক্রেতাকে মারধরের পর পুলিশে দেওয়া হয়

ঠাকুরগাঁওয়ে শিশুর শ্লীলতাহানির অভিযোগে হাসান আলী (৪৪) নামের এক চা দোকানিকে পিটুনির পর পুলিশে দিয়েছে স্থানীয় জনতা।

মঙ্গলবার (৪ অক্টোবর) দুপুরে সদর উপজেলার ভাউলারহাট মোড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আটক হরিনারায়নপুর কাজিবস্তি এলাকার আব্দুল কাশেমের ছেলে।

এসব তথ্য জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছে ঠাকুরগাঁও সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) হাফিজুর রহমান।

ভুক্তভোগী শিশুর বাবা বলেন, ‘ভাউলারহাট মোড়ে আমার ডেকোরেশন দোকান আছে। তার পাশেই হাসানের চায়ের দোকান৷ আমার দোকানে প্রতিদিন মেয়েকে নিয়ে যাই৷ সে ওই চায়ের দোকানে কম্পিউটারে গান শোনে এবং কার্টুন দেখে। ২ অক্টোবর আমি এশার নামাজ আদায় করতে গেলে হাসানের কাছে মেয়ে শ্লীলতাহানির শিকার হয়। বিষয়টি পরদিন জানাজানি হলে আমি তার দোকানে যাই। সে অস্বীকার করে উল্টো আমাকে বলে আমি তাকে ব্ল্যাকমেইল করেছি৷ অথচ আমার চার বছরের মেয়ে তার সঙ্গে যা যা হয়েছে সবই বলেছে।’

jagonews24

অভিযুক্ত দোকানি হাসান আলী বলেন, ‘প্রতিদিনের মতো দোকান খুলি। দুপুরে স্থানীয় কিছু লোক এসে শিশুর শ্লীলতাহানির অভিযোগ এনে আমাকে গাছের ডাল দিয়ে এলোপাতাড়ি মারধর করেছে। আমি এ ধরনের কোনো অপরাধ করিনি।’

এ বিষয়ে ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামাল হোসেন জাগো নিউজকে বলেন, চার বছরের শিশুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে তার বাবা একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে৷ অভিযুক্তকে থানায় আনা হয়েছে। আমরা তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেবো।

তানভীর হাসান তানু/এসজে/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।