সূচকের সঙ্গে কমেছে লেনদেন

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৪০ পিএম, ২৮ মার্চ ২০১৮

দরপতনের বৃত্ত থেকে বের হতে পারেনি শেয়ারবাজার। বুধবারও প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) মূল্য সূচক কমেছে। এ নিয়ে উভয় বাজারে টানা তিনি কার্যদিবস মূল্য সূচক কমলো।

মূল্য সূচকের পাশাপাশি বুধবার উভয় বাজারে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ। সেই সঙ্গে লেনদেন হওয়া বেশির ভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম কমেছে।

ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ১১৭টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১৬০টির। আর দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ৬০টির।

দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান মূল্য সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় দুই পয়েন্ট কমে ৫ হাজার ৪৮৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। অপর দু’টি মূল্য সূচকের মধ্যে ডিএসই-৩০ আগের দিনের তুলনায় এক পয়েন্ট কমে দুই হাজার ৫৫ পয়েন্টে অবস্থা করছে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক ৬ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে এক হাজার ২৯৭ পয়েন্টে।

বাজারে লেনদেন হয়েছে ২৭৭ কোটি ৩৫ লাখ টাকা। আগের দিন লেনদেন হয় ৩১১ কোটি ৪৪ লাখ টাকা। সে হিসাবে আগের দিনের তুলনায় লেনদেন কমেছে ৩৪ কোটি ৯ লাখ টাকা।

টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে রেনেটার শেয়ার। কোম্পানিটির ১৭ কোটি ১৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেনে দ্বিতীয় স্থানে থাকা স্কয়ার ফার্মাসিটিক্যালের ১৪ কোটি ৪৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ১০ কোটি ৯১ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ব্র্যাক ব্যাংক।

লেনদেনে এরপর রয়েছে- গ্রামীণ ফোন, সেলভো কেমিক্যাল, ইফাদ অটোস, মার্কেন্টাইল ব্যাংক, ফার্মা এইড, সিটি ব্যাংক এবং মুন্নু সিরামিক।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের সার্বিক মূল্যসূচক সিএসসিএক্স দুই পয়েন্ট কমে ১০ হাজার ২৩৬ পয়েন্টে অবস্থান করছে। লেনদেন হয়েছে ১০ কোটি ৩৯ লাখ টাকা। লেনদেন হওয়া ২২০টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ৮২টির দাম বেড়েছে। দাম কমেছে ১০৪টির। আর দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৪টির।

এমএএস/এএইচ/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :