জি বাংলার ‘সারেগামাপা’ মাতিয়ে ভাইরাল জামালপুরের অবন্তী

বিনোদন প্রতিবেদক
বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:৫১ পিএম, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

প্রতিভা লুকিয়ে রাখার বিষয় নয়। সে তার আপন গতিতে বিকশিত হয়। তারই নতুন নজির গড়লেন জামালপুরের মেয়ে অবন্তী সিঁথি। পেশায় তিনি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষিকা। সেই তিনি ভাইরাল হয়ে রাতারাতি তারকা বনে গেলেন দুই বাংলায়।

গত শনিবার রাতে ফেসবুকের ওয়ালজুড়ে এশিয়া কাপ ক্রিকেটে তামিম-মুশফিকদের বন্দনার পাশাপাশি প্রশংসায় ভেসেছেন অবন্তীও। ভারতের জি বাংলার জনপ্রিয় রিয়্যালিটি শো ‘সারেগামাপা’য় অংশ নিয়ে একেবারে চমকে দিলেন বাংলাদেশের এই মেয়ে।

কণ্ঠের জাদুর সঙ্গে হৃদয় কাঁপানো শিস আর গানের ভিন্ন রকম উপস্থাপনা দিয়ে তিনি বাজিমাত করেছেন। তার পরিবেশনায় মুগ্ধ হয়ে তাকে দাঁড়িয়ে সম্মান জানিয়েছেন প্রতিযোগিতার মূল বিচারক শ্রীকান্ত আচার্য, শান্তনু মৈত্র, কৌশিকী চক্রবর্তী, মোনালী ঠাকুর। তাদের সঙ্গে নিজেদের মুগ্ধতা প্রকাশ করেন অতিথি বিচারক পণ্ডিত তন্ময় বোস, রূপঙ্কর বাগচী, জয় সরকার ও শুভমিতাও।

শিস দেয়ার ধরনে মন্ত্রমুগ্ধ হয়ে বিচারক পণ্ডিত তন্ময় বোস তো অবন্তীর নামটাই পাল্টে দিলেন। তাকে বলেন, ‘আপনার নাম শিস প্রিয়া।’

ফেসবুক জুড়ে দেখা যাচ্ছে ‘সারেগামাপা’য় অবন্তীর পরিবেশনার ভিডিওটি। শত ইস্যুর ভিড়ে এদেশের নতুন ইস্যু তিনি। সবাই জানতে চাইছেন, কে এই ভাইরাল হওয়া অবন্তী? এই শিল্পীর ফেসবুক আইডি ঘেঁটে ও খোঁজ নিয়ে জানা গেল, জামালপুরের মেয়ে অবন্তী সিঁথি। সেখানেই জন্ম ও বেড়ে ওঠা। জামালপুর সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক আর দিগপাইত শামসুল হক ডিগ্রি কলেজে উচ্চমাধ্যমিক শেষ করেছেন। এর জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে রসায়ন শাস্ত্রে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর শেষ করেছেন।

বর্তমানে ঢাকারই বাসিন্দা তিনি। একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রভাষক হিসেবে যুক্ত। তবে অবন্তীর নেশায় রয়েছে গান। স্কুল কলেজে থাকতেই গান গেয়ে পরিচিতি পান তিনি। গিটার আর হারমোনিয়াম বাজানোও শিখেছেন ছোটবেলায়।

২০০৩ ও ২০০৪ সালে লোকগান ও নজরুলসংগীত গেয়ে জাতীয় পুরস্কার পেয়েছেন। ২০০৫ সালে ক্ল্যাসিক্যাল ও লোকসংগীত গেয়ে অর্জন করেছেন ‘ওস্তাদ আলাউদ্দিন খান স্বর্ণপদক’। ২০১২ সালে তিনি ‘ক্লোজআপ ওয়ান তোমাকেই খুঁজছে বাংলাদেশ’ প্রতিযোগিতাতে অংশ নিয়ে সেরা ১০ জনের তালিকায় ছিলেন।

পরবর্তীতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে আনন্দন সাংস্কৃতিক সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত হন। সেখান থেকে নিয়মিত গান করতেন।

গান গাওয়ার পাশাপাশি ব্যতিক্রমী উপস্থাপনা অবন্তীর মূল আকর্ষণ। তারমধ্যে উল্লেখযোগ্য ‘কাপ সং’। এই বাদ্যের তালে ইউটিউবে অবন্তীর বেশ কিছু গানের ভিডিও রয়েছে যেগুলো বেশ জনপ্রিয়। বর্তমানে তিনি ইউটিউবে ‘ব্যালুন সং’ নিয়ে নিরীক্ষামূলক কাজ করছেন।

তিনি ইনস্ট্রুমেন্টাল ব্যতিক্রমী কাজ করে মানুষকে ভিন্ন মাত্রার বিনোদন দিতে চান। স্বপ্ন দেখেন সিনেমার গানে নিয়মিত হবেন।

এলএ/জেআইএম

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com

আপনার মতামত লিখুন :