বন্ধু এন্ড্রু কিশোরকে হারিয়ে শোকে ভাসছেন হানিফ সংকেত

বিনোদন প্রতিবেদক
বিনোদন প্রতিবেদক বিনোদন প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:১৫ পিএম, ০৬ জুলাই ২০২০

থেমে গেল কিংবদন্তি কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোরের জীবনের গল্প। দীর্ঘ ১০ মাস মরণব্যাধি ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই করে আজ ৬ জুলাই সন্ধ্যা ৬টা ৫৫ মিনিটে না ফেরার দেশে পাড়ি জমান তিনি। গানের ভুবনে উড়বে না এন্ড্রু কিশোরের রঙিন ফানুস।

তার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে সংগীতসহ শোবিজের নানা অঙ্গনে। শিল্পীর প্রিয়জনরা কাঁদছেন, স্মৃতিচারণ করছেন পুরোনো দিনের নানা কথা-গল্পকে বুকে ধরে।

এন্ড্রু কিশোরের খুব কাছের বন্ধু হানিফ সংকেত। তাদের বন্ধুত্বের কথা অজানা নয় কারোর। আজ সেই বন্ধুকে হারিয়ে শোকের সাগরে যেন ভাসছেন হানিফ সংকেত। ফেসবুকে এক দীর্ঘ স্ট্যাটাসে তিনি লিখে জানিয়েছেন সেই শোক।

তিনি লিখেছেন, 'এন্ড্রু কিশোর আর নেই’, প্রিয় বন্ধুর মৃত্যু সংবাদটি নিজের হাতে এত তাড়াতাড়ি লিখতে হবে কখনো কল্পনাও করিনি। এই মুহূর্তে কানে বাজছে রাজশাহী থেকে বলা কিশোরের শেষ কথাগুলো, ‘দোয়া করিস বন্ধু, কষ্টটা যেন কম হয়, আর হয়তো কথা বলতে পারবো না’। এর পরই খুব দ্রুত শরীর খারাপ হতে থাকে কিশোরের। আমারও যোগাযোগ বেড়ে যায় রাজশাহীতে তার পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে।

অবশেষে সবাইকে কাঁদিয়ে আজ সন্ধ্যায় এই পৃথিবী থেকে বিদায় নেয় এন্ড্রু কিশোর-বাংলা গানের ঐশ্বর্য, যার খ্যাতির চাইতে কণ্ঠের দ্যুতিই ছিল বেশি। যার মৃত্যুতে সংগীতাঙ্গনের অনেক বড় ক্ষতি হলো।'

এন্ড্রু কিশোরের আত্মার শান্তি কামনায় তিনি লেখেন, 'অনেক কষ্ট পেয়েছি বন্ধু, এতো তাড়াতাড়ি চলে যাবি ভাবিনি। কিশোরের আত্মার শান্তি কামনা করছি।'

এলএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]