হৃতিকের জন্য ক্যারিয়ার-ঘর ছাড়তে চেয়েছিলেন কারিনা

বিনোদন ডেস্ক
বিনোদন ডেস্ক বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:০৭ পিএম, ১৮ অক্টোবর ২০২১

বলিউডে নায়ক-নায়িকার প্রেম নতুন কিছু নয়। অনেকেই জুটি হয়ে কাজ করতে গিয়ে প্রেমে পড়েছেন। সেই প্রেমে অনেকে ধর্মেন্দ্র ও হেমা মালিনীর মতো সফল হয়ে ঘর বেঁধেছেন। তবে বেশিরভাগ গল্পটাই ব্যর্থতাই। সেই তালিকায় থাকা অন্যতম এক নাম কারিনা কাপুর।

এমনিতে শহীদ কাপুরের সঙ্গে তার প্রেমটাই সবসময় আলোচনায় থাকে। তবে হৃতিক রোশনের সঙ্গেও যে প্রেমটা বেশ জমিয়ে তুলেছেন কারিনা, সেটাও অজানা নয়।

বলিউডে এক সময়ে চর্চার কেন্দ্রবিন্দু ছিলেন হৃতিক ও কারিনা জুটি। সে যেমন জুটি হিসেবে তেমনি অফ স্ক্রিনে জমাট কেমিস্ট্রির জন্যও। কারিনার নামের পাশে তখনও ‘খান’ বসেনি। তবে ‘বেবো’র প্রেম, অর্থাৎ হৃতিক তখন বিয়ে করে সংসারী।

হৃতিকের প্রেমে মগ্ন কারিনা নাকি নিজের প্রায় সব কিছুই ভুলতে বসেছিলেন। শোনা যায়, হৃতিকের জন্য অভিনয় পর্যন্ত ছেড়ে দিতে রাজি ছিলেন কাপুর কন্যা।

২০০১ সালে করণ জোহর পরিচালিত ‘কাভি খুশি কাভি গম’ ছবিতে একসঙ্গে প্রথম অভিনয় করেন হৃতিক-কারিনা। এরপর থেকে কাছাকাছি আসার গল্প রটতে থাকে দুজনকে ঘিরে। একাধিক ছবিতে একসঙ্গে জুটি বেঁধে কাজ। ছবিগুলোর বেশিরভাগই অবশ্য বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পড়লেও ডানা মেলে হৃতিক-কারিনার রসায়ন। পেশাগত সৌজন্যের সীমা ছাড়িয়ে বাড়তে থাকে ঘনিষ্ঠতা।

ঠিক সেই সময়ে দু’জনের মাঝখানে এসে দাঁড়ায় হৃতিকের পরিবার। হৃতিকের জীবন থেকে সরে যেতে অনুরোধ করা হয় কারিনাকে। পরবর্তীকালে কারিনা যদিও এসব কিছুকেই গুঞ্জন বলে উড়িয়ে দিয়েছিলেন। অতীতে এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছিলেন, ‘আমার খুব চিন্তা হতো যে, এই গুঞ্জন ওর দাম্পত্যে প্রভাব ফেলতে পারে। আমারও পেশাগত ক্ষেত্রে ক্ষতি হতে পারত।’

মাঝে কেটে গেছে এক দশক। আর একসঙ্গে ছবি করেননি বেবো-ডুগ্গু। তবে কারিনার স্বামী সইফ আলি খানের সঙ্গে একটি ছবিতে দেখা যাবে হৃতিককে।

এলএ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]