কাশির সিরাপে আসক্তির কথা ফাঁস, ৫ কিশোরের ২ খুন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:১৫ পিএম, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ভারতের বিহারের একটি কিশোর সংশোধন কেন্দ্রের তত্ত্বাবধায়ক এবং ১৭ বছর বয়সী সঙ্গীকে গুলি করে হত্যা করেছে সেখানকার পাঁচ কিশোর। পুলিশ জানায় রাজ্যের পূর্ণিয়া জেলায় ওই পাঁচ কিশোর ওই দু’জনকে হত্যা করে পালিয়ে যায়।

হত্যাকারী ওই পাঁচ কিশোরের একজনের বাবা স্থানীয় জনতা দলের নেতা বলে পুলিশ সূত্রে জানা যায়। তাছাড়া অন্য একটি কিশোর বিভিন্ন অপরাধের সঙ্গে জড়িত এবং তার নামে বেশ কয়েকটি মামলা আছে বলেও জানায় পুলিশ।

পুলিশ বলছে, কিভাবে পূর্ণিয়ার ওই কিশোররা হাতে বন্দুক পেলো কোথা থেকে সেটা তদন্ত করছে তারা। তারা জানায় মঙ্গলবার ওই কিশোররা ৩২৫ কিলোমিটার দূরের পাটনা শহরে যাওয়ার সময় কাশির সিরাপ নিয়ে আসে। ওই সিরাপগুলোকে নেশাদ্রব্য হিসেবে ব্যবহার করে তারা। আর এটা জানতে পেরে ওই কিশোর দলকে শাসন করে এবং রাগ দেখায় তাদের তত্ত্বাবধায়ক।

এরপর বিজেন্দ্র কুমার নামের ওই তত্ত্বাবধায়ক স্থানীয় কিশোর বিচার বোর্ডের কাছে ওই পাঁচ কিশোরকে অন্য কোনো আশ্রয় কেন্দ্রে পাঠানোর অনুরোধ করে। গত মঙ্গলবার তত্ত্বাবধায়কের আবেদন মঞ্জুর করে ওই কিশোরদের অন্য কেন্দ্রে পাঠানোর নির্দেশ দেয় বোর্ড।

তাদেরকে বের করে দেওয়া হচ্ছে জানার পর ওই পাঁচ কিশোর তাদের তত্ত্বাবধায়ক বিজেন্দ্র কুমার এবং সমবয়সী এক সঙ্গীকে গুলি করে হত্যা করে। কাশির সিরাপ কোথায় লুকানো আছে সে বিষয়ে তত্ত্বাবধায়কের কাছে তথ্য ফাঁস করায় ওই কিশোরকে হত্যা করে তারা।

এ ঘটনায় স্থানীয় থানায় একটি এজাহার দাখিল করা হয়েছে। পুলিশ বলছে, হত্যা করার পর ওই পাঁচ কিশোর প্রহরীকে মারধর করে তাকে দরজা খুলতে বাধ্য করে পালিয়ে যায়। তারা ওই কিশোরদের আটক করার জন্য একটি দল গঠন করেছে বলেও জানায়।

এসএ/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :