ইরানের কল পেতে টেলিফোন নিয়ে বসে আছে যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৪৩ এএম, ১৮ মে ২০১৯

ডোনাল্ড ট্রাম্পের এক ঊর্ধ্বতন প্রশাসনিক কর্মকর্তা বলেছেন, ইরানের কাছ থেকে ফোনকলের আশায় টেলিফোন সেট সামনে নিয়ে বসে আছে যুক্তরাষ্ট্র। কিন্তু প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তেহরানের সঙ্গে সরাসরি কথা বলার যে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন সে ব্যাপারে ইরানের পক্ষ থেকে কোনো ইতিবাচক সাড়া পাওয়া যাচ্ছে না। খবর পার্স ট্যুডে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই কর্মকর্তা শুক্রবার সাংবাদিকদের একটি গ্রুপের সঙ্গে আলাপকালে বলেন, এখনো ইরানের পক্ষ থেকে কোনো বার্তা পাওয়া যায়নি। কিন্তু তবুও আমরা টেলিফোন সেটের সামনে অপেক্ষা করছি।

সাম্প্রতিক সময়ে ইরান-মার্কিন সম্পর্কে তীব্র উত্তেজনা বিরাজ করছে। এমন বৈরী সম্পর্কের মধ্যেই গত ৯ মে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প তাকে ফোন করার জন্য ইরানের প্রতি আহ্বান জানান।

একই দিনে সিএনএনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সুইস দূতাবাসের মাধ্যমে ইরানের কাছে ট্রাম্পের একটি টেলিফোন নম্বর হস্তান্তর করা হয়েছে যেন তেহরান সরাসরি ওই নম্বরে যোগাযোগ করতে পারে।

কিন্তু তাদের তরফ থেকে কোন সাড়া পাওয়া যায়নি। ইরানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের সরাসরি কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই। দু’দেশের সুইস দূতাবাস মাধ্যমেই বিভিন্ন বিষয় সমাধান করা হয়ে থাকে।

ইরানের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলার জন্য ট্রাম্পের আগ্রহ প্রকাশ করার চারদিন আগে মধ্যপ্রাচ্যে বিমানবাহী রণতরী পাঠানোর ঘোষণা দেয় যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন যুদ্ধবাজ জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জন বোল্টন বলেন, ইরানকে স্পষ্ট ও নির্ভুল বার্তা দেয়ার জন্য ওই রণতরী পাঠানো হয়েছে।

তবে মার্কিন দৈনিক নিউ ইয়র্ক টাইমস ও বার্তা সংস্থা রয়টার্স শুক্রবার জানিয়েছে, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ইরানের সঙ্গে সামরিক সংঘাত এড়িয়ে চলার জন্য তার প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছেন।

টিটিএন/জেআইএম