প্রণব ছিলেন আরএসএসের পথপ্রদর্শক : মোহন ভাগবত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫৬ পিএম, ৩১ আগস্ট ২০২০

ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন দেশটির ডানপন্থী ও উগ্র হিন্দু জাতীয়তাবাদী সংগঠন রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের (আরএসএস) প্রধান মোহন ভাগবত। প্রণব মুখার্জিকে আরএসএসের ‘পথপ্রদর্শক’ হিসেবে অভিহিত করে মোহন ভাগবত বলেছেন, ‘রাজনৈতিক অস্পৃশ্যতায় বিশ্বাস করতেন না তিনি (প্রণব মুখার্জি)।’

সোমবার বিকেলে রাজধানী নয়াদিল্লির আর্মি রিসার্চ অ্যান্ড রেফারাল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান ৮৪ বছর বয়সী প্রণব। মস্তিষ্কের অস্ত্রোপচারের পর তিন সপ্তাহের বেশি সময় ধরে এই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি।

আজ সকালের দিকে হাসপাতালের এক বিবৃতিতে ভারতের রাজনীতির অন্যতম এই আইকনের শারীরিক অবস্থার অবনতির খবর দেয়া হয়। ফুসফুসের সংক্রমণের কারণে সেপটিক শক থেকে কোমায় চলে গিয়েছিলেন তিনি।

আরএসএসের সাধারণ সম্পাদক সুরেশ ভাইয়াজি যোশির সঙ্গে যৌথ এক বিবৃতিতে মোহন ভাগবত বলেন, ‘প্রণব মুখার্জি ছিলেন একজন দক্ষ প্রশাসক; যিনি জাতীয় স্বার্থকে সবার ওপরে রাখতেন। তিনি রাজনৈতিক অস্পৃশ্যতার চর্চা করতেন না এবং সব দলের কাছেই ছিলেন শ্রদ্ধার পাত্র।’

বিবৃতিতে বলা হয়, তিনি ছিলেন সংঘের পথপ্রদর্শক। সংগঠনের প্রতি তার ভালোবাসা ছিল অতুলনীয়। তার মৃত্যু আরএসএসের জন্য অপূরণীয় ক্ষতি।

২০১৮ সালের জুনে আরএসএসের এক অনুষ্ঠানে অংশ নেয়ার ঘোষণা দেয়ার পর নিজ দল কংগ্রেসের সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন ভারতের ১৩তম ও প্রথম বাঙালি রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি।

পরে ওই অনুষ্ঠানে দেশের সহিষ্ণুতা এবং বহুমতের সহাবস্থানের ঐতিহ্য তুলে ধরে সব ধর্ম, জাত ও জনজাতির মানুষকে জীবনের মূলস্রোতে শামিল করার দীর্ঘ ইতিহাসের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়েছিলেন তিনি। তার ভাষণের পর কংগ্রেস প্রণব মুখার্জির প্রশংসা করে।

সূত্র: এনডিটিভি।

এসআইএস/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]