রাজীবের ছোট ভাইটার চাওয়া সড়কে শৃঙ্খলা আসুক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:১০ পিএম, ২০ জুন ২০১৯

মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারানো তিতুমীর কলেজের ছাত্র রাজীবের পরিবারকে দুই মাসের মধ্যে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। এ রায়ে নিজের সন্তুষ্টির কথা জানিয়েছেন রাজীবের ছোট ভাই মেহেদী হাসান বাপ্পী।

তবে এভাবে যেন আর কারও ভাই না হারায় সে চাওয়াও উঠে এসেছে বাপ্পীর কথায়। ভাই ফিরে আসবে না, তবে সড়কে যেন শৃঙ্খলা আসে নিজের সে চাওয়ার কথাও বলেছেন বাপ্পী।

বৃহস্পতিবার রায় ঘোষণা হওয়ার পর সাংবাদিকরা তার কাছে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে এসব কথা বলেন বাপ্পী।

rajib-brother

বাপ্পী আরও বলেন, আমার বাবা-মা ছিল না। সে (রাজীব) ছিল অভিভাবক। আমি যখন ক্লাস ফাইভে পড়তাম তখন সে নিয়মতি আমাকে গণিত ও ইংরেজি পড়াত। আমি এখন সেসব থেকে বঞ্চিত। এরকম যাতে আর না হয়। মানুষ সচেতন হোক। আদালতের রায়ের মাধ্যমে সড়কে শৃঙ্খলা আসুক।

আদালত রায়ে বলেছেন, রাজীবের পরিবারকে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। এর ২৫ লাখ টাকা দিতে বলা হয়েছে বিআরটিসিকে ও বাকি ২৫ লাখ টাকা দিতে বলা হয়েছে স্বজন পরিবহনকে। রাজীবের মৃত্যুর ঘটনায় তার পরিবারকে এক কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে নির্দেশ কেন দেয়া হবে না- তা জানতে চেয়ে জারি করা রুল নিষ্পত্তি করে আজ (বৃহস্পতিবার) এ আদেশ দেন আদালত। বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

এফএইচ/এনএফ/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :