র‌্যাগিং বন্ধে ব্যবস্থা নিলে আবরার হত্যাকাণ্ড ঘটতো না

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৩০ পিএম, ১২ অক্টোবর ২০১৯

বিশ্ববিদ্যালয়ে র‌্যাগিং বন্ধে আগে যদি ব্যবস্থা গ্রহণ করতো তা হলে আবরারের হত্যার মতো ঘটনা ঘটতো না বলে মন্তব্য করেছেন সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ।

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যার বিষয়ে তিনি এমন মন্তব্য করেন। শনিবার আইন, বিচার ও সংবিধান বিষয়ক সাংবাদিকদের সংগঠন ল রিপোর্টারদের জন্য আয়োজিত কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি বলেন, শিক্ষক সমিতি আজ আবরার হত্যার ঘটনা নিয়ে মিছিল করেছে। আজ কেন তারা মিছিল করছে? র‌্যাগিং বন্ধে আগে থেকে বিশ্ববিদ্যালগুলো যদি ব্যবস্থা গ্রহণ করতো তা হলে আবরারের হত্যার মতো ঘটনা ঘটতো না।

juge-01

যৌন হয়রানি প্রতিরোধে হাইকোর্টের রায় বাস্তবায়ন ও গণমাধ্যমের ভূমিকা শীর্ষক কর্মশালার আয়োজন করে বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতি। বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যার ঘটনার প্রসঙ্গ টেনে এ বিচারপতি বলেন, সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের র‌্যাগিংয়ের ঘটনা নিয়ে যদি আগে থেকে শিক্ষকরা ব্যবস্থা নিত তা হলে আবরার ফাহাদ হত্যার ঘটনা ঘটতো না।

গত রোববার রাতে বুয়েটের শেরেবাংলা হলের ২০১১ নম্বর কক্ষে আবরারকে পেটান বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতা। এরপর রাত ৩টার সময় ওই হলের একতলা থেকে দোতলায় ওঠার সিঁড়ির মাঝ থেকে আবরার ফাহাদের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরবর্তীতে ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক জানান, আবরারের মরদেহে অসংখ্য আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ১৯ জনকে আসামি করে মামলা করেন আবরারের বাবা বরকত উল্লাহ। ইতোমধ্যে ১৭ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। যাদের অধিকাংশই ছাত্রলীগের নেতাকর্মী।

এফএইচ/এমএআর/এমকেএইচ