ব্যায়াম ছাড়াই যেভাবে ১৫ কেজি ওজন কমালেন ভারতী!

লাইফস্টাইল ডেস্ক
লাইফস্টাইল ডেস্ক লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২:০৪ পিএম, ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২১
ছবি- ইনস্টাগ্রাম

ওজন কমাতে কত সেলিব্রিটি কত কিছুই না করেন। যে কোনো মূল্যেই তারা নিজেদেরকে আকর্ষণীয়ভাবে পর্দায় উপস্থাপন করতে চান। তবে এই ধারার উল্টো স্রোতে বরাবরই হেঁটেছেন ভারতী সিং।

কমেডি কুইন ভারতী ৯১ কেজি ওজন নিয়েও পর্দায় সব সময় সরব ছিলেন। সম্প্রতি তিনি ১৫ কেজি ওজন কমিয়েছেন, তাও আবার কোনো ধরনের ব্যায়াম ছাড়াই! ৯১ কেজি থেকে ওজন কমিয়ে ৭৬ কেজিতে এসেছেন তিনি।

 
 
 
View this post on Instagram

A post shared by Bharti Singh (@bharti.laughterqueen)

কীভাবে ভারতী সিং ১৫ কেজি ওজন কমালেন? জানলে অবাক হবেন, ওজন কমাতে তিনি কোনো ধরনের ডায়েট চার্ট অনুসরণ করেননি।

ইন্টারমিটিং ফাস্টিং বেছে নিয়েছেন তিনি ওজন কমানোর জন্য। উপবাসের মাধ্যমেই ক্রমাগত ওজন কমিয়েছেন তিনি। ভারতীর ওজন কমানোর রুটিন কেমন ছিল?

ভারতী উপবাসের মাধ্যমে তার খাদ্য খাওয়া কমিয়ে আনেন। তিনি তার মতো করেই ওজন কমানোর যাত্রা চালিয়ে যান। দিনে ১৭ ঘণ্টা উপবাস করেছেন তিনি।

 
 
 
View this post on Instagram

A post shared by Bharti Singh (@bharti.laughterqueen)

সন্ধ্যা ৭টা থেকে পরের দিন ১২টা পর্যন্ত কোনো খাবারই খান না ভারতী। আর বাকি ৭ ঘণ্টায় ভারতী দু’বেলা পুষ্টিকর খাবারের পাশাপাশি পরোটা, ডিম, ডাল-সবজি খেয়ে চলেছেন এখনও। এভাবেই তিনি ১৫ কেজি ওজন কমিয়েছেন।

ভারতী আগেও বেশ কয়েকবার গণমাধ্যমে জানান, ওজন নিয়ে তার কোনো সমস্যাই ছিল না। কখনও তিনি অন্যের কটাক্ষ বা বডি শেডমিংয়ের ধার ধারেননি। কারও কথায় মন খারাপ বা রাগও করেননি। বরং নিজের ওজন নিয়েও মজা করতেন।

 
 
 
View this post on Instagram

A post shared by Bharti Singh (@bharti.laughterqueen)

ওজন কমানো প্রসঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, করোনা আতঙ্ক ও লকডাউনের কারণে বাড়ির প্রায় সব কাজকর্মই তাকে করতে হয়েছে। তবে অতিরিক্ত মোটা হওয়ায় সামান্য কাজ করতেই হাঁপিয়ে উঠতেন ভারতী।

শারীরিকভাবে যে তিনি ফিট নন তা তিনি বুঝতে পারেন। এরপরই ওজন কমানোর জন্য ইন্টারমিটেন ফাস্টিং শুরু করেন। এর ফলও তিনি পেয়েছেন হাতেনাতে।

সূত্র: ইন্ডিয়াডটকম/হিন্দুস্তান টাইমস

জেএমএস/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]