ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার ক্ষেত্রে আমূল পরিবর্তন এনেছেন জয়

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১১:৪৯ এএম, ২০ ডিসেম্বর ২০১৭ | আপডেট: ১১:৫৮ এএম, ২০ ডিসেম্বর ২০১৭

জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, ২০০৮ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে রূপকল্প ভিশন-২০২১ ঘোষণা করেছিলেন। প্রধানমন্ত্রীর একমাত্র ছেলে, তথ্য প্রযুক্তিবিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় বিগত ৯ বছরে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার ক্ষেত্রে এনেছেন আমূল পরিবর্তন।

বাংলাদেশে নবনিযুক্ত সুইজারল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত রেনে হোলেস্টাইন স্পিকারের সঙ্গে বুধবার তার সংসদের কার্যালয়ে সাক্ষাৎকালে তিনি একথা বলেন। সাক্ষাৎকালে তারা দ্বিপাক্ষিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন।

শিরীন শারমিন বলেন, তৃণমূল পর্যায়সহ দেশের ৮ কোটি মানুষের কাছে পৌঁছে গেছে ইন্টারনেট সেবা। এ সময়ে তিনি নারীর প্রশিক্ষণ, দক্ষতাবৃদ্ধি ও তরুণ প্রজন্মকে মানবসম্পদে পরিণত করতে সুইজারল্যান্ডের সহযোগিতা কামনা করেন।

স্পিকার বলেন, রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক মুক্তি, বিশেষ করে গ্রামীণ অর্থনৈতিক উন্নয়ন এবং সাধারণ মানুষের মুক্তির লক্ষ্যেইে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তার জীবনের শুরু থেকেই আন্দোলন সংগ্রাম করেছিলেন। বঙ্গবন্ধু শুধু রাজনৈতিক মুক্তিই দাবি করেননি, স্বপ্ন দেখেছিলেন অর্থনীতিতেও সমৃদ্ধ বাংলাদেশের। তার সেই অর্থনীতি উন্নয়ন ভাবনার গতি ধরেই তার সুযোগ্য মেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে চলেছে অর্থনৈতিক মুক্তির ঠিকানায়।

রেনে হোলেস্টাইন বাংলাদেশ ও বাংলাদেশের জনগণকে অতিথিপরায়ণ ও আন্তরিক উল্লেখ করে বলেন, নারীর ক্ষমতায়নে বাংলাদেশ অনুকরণীয় এবং অর্থনৈতিক বিভিন্ন সূচকেও এদেশের অগ্রগতি লক্ষ্যণীয়।

তিনি বাংলাদেশ ও সুইজারল্যান্ডের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক আরও জোরদার করার লক্ষ্যে কাজ করে যাবেন বলে স্পিকারকে আশ্বস্ত করেন। এ সময় তিনি তরুণ প্রজন্মের সক্ষমতা বৃদ্ধি ও নারীদের প্রশিক্ষণ ও দক্ষতা বৃদ্ধিতে কাজ করার আগ্রহ প্রকাশ করেন।

এইচএস/জেএইচ/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :