ঘোষণা অনুযায়ী প্রধান সড়কে রিকশা চলাচল না করার আহ্বান মেয়রের

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৩৩ পিএম, ০৬ জুলাই ২০১৯

সড়কে শৃঙ্খলা ফেরানোর লক্ষ্য আগামীকাল (রোববার) থেকে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) আওতাধীন কুড়িল থেকে মালিবাগ এবং গাবতলী থেকে আসাদগেট পর্যন্ত প্রধান সড়কে রিকশা চলাচল না করার জন্য রিকশামালিক, চালকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন মেয়র আতিকুল ইসলাম।

পাশাপাশি ডিএনসিসি আওতাধীন ফুটপাত দখলমুক্ত করতে ডিএনসিসির টিম মাঠে নামবে বলেও জানান তিনি।

শনিবার গুলশান নগর ভবনে ডিএনসিসি এলাকার বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্তকর্তা, রিকশামালিক সমিতিসহ সংশ্লিষ্টদের নিয়ে এক মতবিনিময় সভায় মেয়র এসব কথা বলেন।

মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, উন্নত হচ্ছে। বাড়ছে জনসংখ্যা। আমরা এতদিন ম্যানুয়াল ছিলাম। আমাদের এমন পরিস্থিতি থেকে উত্তরণের জন্য মেকানিক্যাল সিস্টেমে যেতে হবে। তাই একটি সড়কে ম্যানুয়াল এবং মেকানিক্যাল সিস্টেম একসঙ্গে চলতে পারে না। এ জন্য আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি যেসব সড়কে যান্ত্রিক পরিবহন চলে সেসব সড়কে রিকশা চলতে দেয়া হবে না। এর কারণে শুধু যে যানজট হচ্ছে তা নয়, দুর্ঘটনারও শঙ্কা থাকছে।

তিনি আরও বলেন, আমরা পুরো শহর থেকে রিকশা তুলে দিচ্ছি তা কিন্তু নয়। আমরা শুধু বলছি শহরের প্রধান সড়কগুলোতে রিকশা যেন না চলে। এতে কেউ কেউ বিভ্রান্তি ছড়ানোর চেষ্টা করছে যে, শহর থেকেই রিকশা তুলে দেয়া হচ্ছে। পাশাপাশি আমরা অবৈধ রিকশা চলাচল সম্পূর্ণ বন্ধের ঘোষণা দিয়েছি এবং বৈধ রিকশাগুলো (নিবন্ধনপ্রাপ্ত) ডিএনসিসির প্রধান সড়কের সংযুক্ত ৭৪ নেটওয়ার্কিং রোডে চলবে।

জনদুর্ভোগ এড়াতে রিকশা চলাচল বন্ধের পাশাপাশি কাল থেকে ডিএনসিসির সব এলাকায় যেখানেই ফুটপাত দখল থাকবে সেখানে আমাদের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা অভিযান পরিচালনা করবেন বলেও জানান মেয়র।

এএস/বিএ/এমকেএইচ

টাইমলাইন  

আপনার মতামত লিখুন :