‘কোথাও দাঁড়ালেই বলে রং পার্কিং’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১১:৩৬ এএম, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

ছয় দফা দাবিতে রাইড শেয়ারিং সার্ভিস চালকদের একদিনের কর্মবিরতি চলছে। মঙ্গলবার (২৮ সেপ্টেম্বর) মিরপুরের বিভিন্ন সড়কের মোড়ে মোড়ে রাইড শেয়ারিং চালকদের মোটরসাইকেলের জটলা চোখে পড়েনি। যদিও দু-একজন চালককে যাত্রী নিতে দেখা গেছে।

রাইড শেয়ারিং চালক সাজ্জাদ আলম বলেন, পুলিশি ঝামেলাটাই বেশি। ধরলেই ১ হাজার টাকার মামলা দেয়। কোথাও দাঁড়ালেই বলে রং পার্কিং। যেখানে দাঁড়াবেন, ওটাই রং পার্কিং বলে মামলা দিবে। সারাদিন কষ্ট করে ১ হাজার টাকার বেশি ঘরে নেওয়া যায় না। তারপরে পদে পদে ট্রাফিক পুলিশের হয়রানি, মামলা।

jagonews24

তিনি বলেন, অ্যাপ ও খ্যাপ দুটোতেই চালাই। অ্যাপে অনেক টাকা কেটে নেয়। অ্যাপে চালালেও পুলিশ মামলা দেয়।

jagonews24

সেলিম নামের এক চালক বলেন, আগে গার্মেন্টসে চাকরি করতাম। চাকরি হারিয়ে দুই বছর ধরে রাইড শেয়ারিংয়ে বাইক চালাই। আমার কাগজপত্র ঠিক আছে। পেছনে যাত্রী দেখলে বলে এই লোক কে, এদিকে আসো। পরে কাগজপত্র পকেটে ঢুকিয়ে ঘোরায় পুলিশ। সবকিছু ঠিক থাকলেও রং পার্কিং বলে মামলা দেয়। কদিন আগেই ৩ হাজার টাকার মামলা ভাঙালাম।

jagonews24

অ্যাপ-বেইজড ড্রাইভারস ইউনিয়ন অব বাংলাদেশের ডাকে সোমবার (২৭ সেপ্টেম্বর) মধ্যরাত থেকে মোটরসাইকেল চালকরা কর্মসূচি পালন করছেন বলে সংগঠনটির বেলাল আহমেদ জানিয়েছেন।

অ্যাপভিত্তিক সেবা প্রদানকারীদের শ্রমিক হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া, সব রাইড সার্ভিসের জন্য ১০ শতাংশ কমিশন নির্ধারণ, পুলিশি হয়রানি বন্ধ করা এবং তাদের জন্য নির্ধারিত পার্কিংয়ের ব্যবস্থা করাসহ ৬ দাবিতে মোটরসাইকেল চালকরা এ কর্মসূচি পালন করেছেন।

এসএম/ইউএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]