অনলাইনে মেলে না বিমানের টিকিট, অভিযানে দুদক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:৩৭ এএম, ২১ জানুয়ারি ২০২২
মতিঝিলে বিমানের অফিসে দুদকের অভিযান

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের টিকিটের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধি, অনলাইনে সিট খালি নাই দেখালেও ফ্লাইট ছাড়ার সময় আসন খালি থাকে- এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে মতিঝিলে প্রতিষ্ঠানটির অফিসে অভিযান চালিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) এনফোর্সমেন্ট টিম।

বৃহস্পতিবার (২০ জানুয়ারি) দুদক প্রধান কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মো. জাভেদ হাবীব এবং উপসহকারী পরিচালক সোমা হোড়ের সমন্বয়ে গঠিত এনফোর্সমেন্ট টিম অভিযান চালায়।

দুদকের জনসংযোগ দপ্তর বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

জানা গেছে, অভিযানকালে দুদক টিম কার্যালয়ের জেনারেল ম্যানেজার এবং ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজারের সঙ্গে অভিযোগ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করে।

বিমানের টিকিটিং ব্যবস্থাপনা, টিকিটের মূল্য নির্ধারণ পদ্ধতি, টিকিট বুকিং সংক্রান্ত রেকর্ডপত্র সংগ্রহ করে এনফোর্সমেন্ট টিম। এছাড়া টিম বিমানের মতিঝিল অফিসে রক্ষিত অভিযোগ, পরামর্শ বক্স এবং সংশ্লিষ্ট রেজিস্টার পর্যবেক্ষণ করে বলে জানা গেছে।

সংগৃহীত নথিপত্র বিশ্লেষণ করে কোনো ধরনের প্রযুক্তিগত কারসাজির মাধ্যমে টিকেটিং প্রক্রিয়ায় কোনো অনিয়ম এবং দুর্নীতি হচ্ছে কি না সেটি যাচাই করে কমিশন বরাবর বিস্তারিত প্রতিবেদন দাখিল করবে এনফোর্সমেন্ট টিম।

jagonews24

গত বছরের ১১ আগস্ট থেকে বাংলাদেশ বিমানের টিকিট বিক্রির ওয়েবসাইটটি সাময়িকভাবে বন্ধ রয়েছে। তবে দেশি-বিদেশি সেলস অফিস, অনুমোদিত ট্রাভেল এজেন্সি ও বিমান কল সেন্টারের মাধ্যমে সব রুটের টিকিট ক্রয়, পরিবর্তন ও ফেরতের প্রক্রিয়া চালু আছে বলে বিমান কর্তৃপক্ষ জানায়।

২০২১ সালের ২১ আগস্ট এক বিজ্ঞপ্তিতে বিমান জানায়, ২০১৯ সাল থেকে বিমানের অনলাইন প্ল্যাটফর্মে টিকিট বিক্রির দায়িত্ব পালনকারী প্রতিষ্ঠান ১০ আগস্ট থেকে এ সেবা দেওয়া বন্ধ করে দিয়েছে।
তবে বিমান বিশ্ব স্বীকৃত সার্ভিস প্রোভাইডারের মাধ্যমে শিগগির উন্নত অনলাইন সেবা প্রদান নিশ্চিত করতে যাচ্ছে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

এসএম/ইএ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]