নিজ উদ্যোগে অবৈধ দোকানপাট উচ্ছেদ করলো গুলশান সোসাইটি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:২৬ পিএম, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২

ঢাকার গুলশানে ফুটপাতের জায়গা দখল করে গড়ে ওঠা প্রায় ২৫০টি অবৈধ দোকান উচ্ছেদ করেছে গুলশান সোসাইটি কর্তৃপক্ষ।

শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) গুলশান-২ নম্বর এলাকার ১৫টি সড়কের ফুটপাত থেকে এসব দোকান উচ্ছেদ করা হয়।

গুলশান সোসাইটির সংশ্লিষ্টরা জানান, এই দোকানগুলো ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) উচ্ছেদ করার কথা ছিল। বিষয়টি তাদের একাধিকবার জানানো হয়েছে। কিন্তু ডিএনসিসির কর্তৃপক্ষের দেরি দেখে তারা আজ (শনিবার) নিজেরাই উচ্ছেদ করেছেন।

গুলশান-২ নম্বরের নাভানা ও রবি টাওয়ারের আশপাশের ১০টি ও গুলশানের লেকপাড়ের পাঁচটি রাস্তায় অভিযান চালানো হয়। এছাড়া ১, ৩, ১৭ থেকে ২৪, ১১৩, ১১৪, ১২৬, ১৩০ এবং ১৩৩ নম্বর সড়কের ফুটপাত দখল করে বসানো দোকান ও অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়।

দুপুর আড়াইটা পর্যন্ত চলা অভিযানে গুলশান সোসাইটির প্রতিনিধি, সোসাইটির শতাধিক নিরাপত্তাকর্মী ও গুলশান থানা-পুলিশের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

গুলশান সোসাইটির মহাসচিব শুক্লা সারওয়াত সিরাজ সাংবাদিকদের বলেন, ঢাকা উত্তর সিটির কর্মকর্তারা বলেছিলেন, যৌথভাবে সিটি করপোরেশন ও গুলশান সোসাইটি মিলে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হবে। উচ্ছেদের বিষয়ে সোসাইটির মনোভাব মেয়রকে জানানো হয়েছিল। করপোরেশন উচ্ছেদের পরিকল্পনা করেছে। কিন্তু এর মধ্যে অনেক দিন চলে গেছে। এ কারণে পুলিশ প্রশাসনের সহায়তা নিয়ে এই অভিযান চালানো হয়েছে। অবৈধ স্থাপনাগুলোর মধ্যে খাবার হোটেল, গাড়ি মেরামতের গ্যারেজ ও চায়ের টংঘর ছিল।

এমএমএ/আরএডি/জেআইএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।