সরকার প্রতিটি ক্ষেত্রে দুর্নীতি করছে : সালাম

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৩৮ পিএম, ২৫ মে ২০১৯

সরকার প্রতিটি ক্ষেত্রে প্রত্যেক জায়গা থেকে দুর্নীতি করছে বলে জানিয়েছেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম।

তিনি বলেন, সরকার দেশের জনগণকে ভালোবাসে না। ভালোবাসে ক্ষমতা আর টাকা। যার জন্য এমন কোনো খাত নেই যেখানে সরকারের দুর্নীতি নেই।

শনিবার (২৫ মে) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে জাতীয়তাবাদী চালক দলের উদ্যোগে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের দুর্নীতির প্রতিবাদে আয়োজিত মানববন্ধনে তিনি এ কথা বলেন।

আব্দুস সালাম বলেন, যে কাজটি চীনের করতে লাগে ১০ টাকা, ভারতের লাগে ১৩ টাকা সেই কাজ বাংলাদেশে করতে লাগে ৫০ টাকা। তাহলে ভাবুন এ দেশে কতটা দুর্নীতি হয়।

তিনি বলেন, আসলে দেশের প্রতিটি জায়গায় প্রত্যেক খাতে সরকার দুর্নীতি করছে। এ সরকার পদ্মা সেতুর কাজ শুরুর সময় বলেছিল ১০ হাজার কোটি টাকা খরচ হবে, এখন ৪০ হাজার কোটি টাকার বেশি চলে গেছে। তাহলে কতটুকু দুর্নীতি করেছে? দেশের জনগণ একটু ভাবুন।

তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগের মন্ত্রী কেন বলে তারা বা সরকার সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান কিনতে পারবে না। এর কারণ হলো মন্ত্রীই ব্যবসায়ীদের দিয়ে ধান কিনে সেই ধান সরকারের কাছে বিক্রি করে সুবিধা নিবে।

বিএনপির এ নেতা বলেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র করা হচ্ছে। এ বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে মানুষ কতটুকু বিদ্যুৎ পাবে তা তাদের দুর্নীতি দেখে বুঝা গেছে। যে বিদ্যুৎকেন্দ্রে আবাসিকে একটি বালিশ উঠাতে এক হাজারের মত টাকা খরচ হয়, সেই বিদ্যুৎকেন্দ্রের বিদ্যুৎ তো সাধারণ মানুষ পাবে না। এটা করা হচ্ছে সরকারের কিছু লোকদের পেট ভরানোর জন্য। সরকার জনগণকে ভালোবাসে না। সে ভালোবাসে টাকা আর ক্ষমতা। যার কারণে মেগা প্রজেক্ট নিয়ে আসে ঋণ করে। আর সেই প্রজেক্টের টাকা দুর্নীতি করে খেয়ে ফেলে। সরকার যেভাবে ঋণ করছে তাতে ১০/১৫ বছর পরে দেশ বিদেশিদের হাতে চলে যাবে।

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন কবিরের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান হাবিব, কৃষক দলের সদস্য দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, সংগঠনের সহ-সভাপতি শাফিন আহমেদ লিখুন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ফজলে কবির সাগর, সংগঠনের নেতা মনির মৃধা প্রমুখ।

কেএইচ/এএইচ/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :