বিএনপির ইফতারে আ. লীগের দাওয়াত

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৩০ পিএম, ২৬ মে ২০১৯

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ নেতাদের ইফতারের দাওয়াত দিয়েছেন বিএনপি নেতারা। রোববার বিকেল ৪টার পর আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে বিএনপির একটি প্রতিনিধি দল দাওয়াতপত্র নিয়ে আসে।

বিএনপির পক্ষ থেকে দাওয়াত দিতে আসা প্রতিনিধি দলের সদস্যরা হলেন- জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য অধ্যাপক আমিনুল ইসলাম, সহ-দফতর সম্পাদক বেলাল আহমেদ ও তাইফুল ইসলাম টিপু।

আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে দাওয়াতপত্র গ্রহণ করেন দলটির উপ-দফতর সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া।

বিএনপির প্রতিনিধি দলকে বিপ্লব বড়ুয়া বলেন, ‘আপনারা গতকালকে গণভবনে সব রাজনৈতিক দলের সৌজন্যে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ইফতার মাহফিলে আসলে ভালো হতো।’

ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া দাওয়াত কার্ড গ্রহণ শেষে সাংবাদিকদের বলেন, ‘গতকাল প্রধাননমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে সব রাজনৈতিক দলের সম্মানে ইফতারের আয়োজন ছিল। প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে সব রাজনৈতিক দলকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল। গত বছরের ডিসেম্বর মাসে গণভবনে অনুষ্ঠিত জাতীয় সংলাপে যে সব দল অংশগ্রহণ করেছিল সবাইকে তিনি যথাযথভাবে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। বিএনপিসহ ঐক্যফ্রন্টের সব নেতাকে কার্ড আমরা আরামবাগে ঐক্যফ্রন্টের কার্যালয়ে দিয়ে এসেছি এবং গতকাল দুপুরে প্রধানমন্ত্রীর সরাসরি নির্দেশনায় আমি বিশেষ সহকারী হিসেবে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনসহ অন্য নেতাদের সঙ্গে টেলিফোনে আমন্ত্রণের বিষয়টি অবহিত করি। তারা আমাকে জানিয়েছেন, তারা দাওয়াত পেয়েছেন কিন্তু তাদের পূর্বনির্ধারিত একটি কর্মসূচি থাকায় গতকালের অনুষ্ঠানে আসতে পারবেন না।’

তিনি আরও বলেন, ‘আজকে আমরা আগামী ২৮ তারিখে ইফতার মাহফিলের দাওয়াত পেয়েছি, তাদের কেন্দ্রীয় পর্যায়ের তিনজন নেতা এসে আমাদের দলীয় সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরকে দাওয়াত দিয়েছেন।’

আপনারা তো বিএনপির দাওয়াত পেলেন, এখন তাদের ইফতার পার্টিতে যাবেন কি না- এমন প্রশ্নের জবাবে বিপ্লব বড়ুয়া জানান, প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি ২৮ তারিখ সকালে জাপান সফরে যাবেন। আর সাধারণ সম্পাদক কিছুদিন আগে চিকিৎসা শেষে দেশে ফিরেছেন। উনারা আজকে সবেমাত্র দাওয়াত দিল আমার দলীয় হাইকমান্ডে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেব।’

ইফতার মাহফিলের দাওয়াত কার্ড গ্রহণকালে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ব্যক্তিগত কর্মকর্তা সৈয়দ আবদুল আউয়াল শামীম ও জিএম মাসুদুল হাসান উপস্থিত ছিলেন।

২৮ মে ঢাকা লেডিস ক্লাবে বিএনপির পক্ষ থেকে সব রাজনৈতিক দলের সৌজন্যে এ ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে।

এইউএ/এনডিএস/জেআইএম