গায়েবি মামলা-গ্রেফতার সরকারের দৈনন্দিন কার্যতালিকায় স্থান পেয়েছে

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৫৭ পিএম, ১৭ জানুয়ারি ২০২২
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর/ফাইল ছবি

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, যেকোনো মুহূর্তে ক্ষোভে ফেটেপড়া মানুষ বর্তমান সরকারের সিংহাসন উল্টে দিতে রাজপথ কাঁপিয়ে ধেয়ে আসবে।

সোমবার (১৭ জানুয়ারি) গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনের আগের রাতে ভোট ডাকাতির মাধ্যমে নির্লজ্জভাবে রাষ্ট্রক্ষমতা দখলকারী কর্তৃত্ববাদী আওয়ামী সরকার এখন পুরোপুরি ফ্যাসিবাদী কায়দায় দেশ শাসন শুরু করেছে। বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনসহ বিরোধীদলীয় নেতাকর্মীদের রাজনীতি থেকে সরিয়ে দিতে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভুয়া ও গায়েবি মামলা দায়ের এবং গ্রেফতার করা যেন বর্তমান সরকারের দৈনন্দিন কার্যতালিকায় স্থান পেয়েছে।

তিনি বলেন, এই লক্ষ্যে মানুষের ভোটের অধিকার এবং গণতান্ত্রিক অধিকারকে জোর করে কেড়ে নেওয়া হয়েছে। দেশকে বিরোধী দলশূন্য করতে বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে কোনো কারণ ছাড়াই মিথ্যা মামলা দিয়ে কারান্তরীণ করা হচ্ছে। ভুয়া, বানোয়াট ও সাজানো মামলায় নোয়াখালী জেলার সেনবাগ উপজেলার ৭ নম্বর মহম্মদপুর ইউনিয়ন ছাত্রদলের সভাপতি ও সেনবাগ উপজেলা ছাত্রদলের ১ম যুগ্ম আহ্বায়ক ফখরুল ইসলাম রুবেলকে গ্রেফতার সরকারের ধারাবাহিক অপকর্মেরই অংশ।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, সরকার দেশ শাসনে সবক্ষেত্রে নজিরবিহীন ব্যর্থতা ঢাকতেই বিএনপি এবং অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের বানোয়াট মামলায় গ্রেফতার ও কারাগারে আটকে রাখতে উন্মাদ হয়ে গেছে। তবে সরকারের সব অপকর্ম ও অপশাসনের মূলোৎপাটনে জনগণের ক্ষোভ এখন তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে। যেকোনো মূহুর্তে ক্ষোভে ফেটেপড়া মানুষ বর্তমান সরকারের সিংহাসন উল্টে দিতে রাজপথ কাঁপিয়ে ধেয়ে আসবে।

বিএনপি মহাসচিব অবিলম্বে মামলা প্রত্যাহার করে গ্রেফতারদের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানান।

কেএইচ/এমএইচআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]