বার্ধক্যের কঠিন রোগ থেকে মুক্তির দোয়া

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫৯ পিএম, ১৩ মার্চ ২০১৮

মানুষের বয়স বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে রোগাক্রান্ত হয়ে পড়ে। বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে যায়। বার্ধক্যের কারণে সবচেয়ে যে রোগগুলো বেশি হয় তন্মধ্যে দৃষ্টিশক্তি ও হাঁটা-চলার শক্তি লোপ পায় বেশি।

এ সব রোগ থেকে মুক্ত থাকতে রয়েছে প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের শেখানো ছোট্ট দোয়া। যা তিনি তাঁর এক বৃদ্ধ সাহাবির আমলের জন্য নসিহত করেছিলেন।

প্রতিদিন ফজরের নামাজের পর ৩ বার এ তাসবিহ পড়া-
سُبْحَانَ رَبِّىَ الْعَظِيْم وَ بِحَمْدِهِ
উচ্চারণ : ‘সুবহানা রাব্বিয়াল আজিম ওয়া বিহামদিহি।’

উৎস
হজরত কুবাইসা হিলালি রাদিয়াল্লাহু আনহু বলেন, আমি একবার রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের কাছে আসলে তিনি আমার আসার কারণ জানতে চাইলেন, কেন এসেছ?

আমি বললাম ইয়া রাসুলাল্লাহ! আমি অনেক বৃদ্ধ হয়েগেছি। যে কারণে আমার শরীরে শক্তি নেই। আমি বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত। আমার হাড়গুলো দূর্বল হয়েগেছে। আমার চোঁখের দৃষ্টি ক্ষ্নীন হয়ে আসছে। আমাকে কিছু আমল বলে দিন, যার মাধ্যমে আমি উপকৃত হতে পারি।

তখন রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বললেন, হে কুবাইসা! তোমার আগমনে পথের গাছ এবং পাথরগুলো তোমার জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করছে।

হে কুবাইসা! তুমি প্রতিদিন ফজরের নামাজের পর ৩ বার سُبْحَانَ رَبِّيَ الْعَظِيْم وَبِحَمْدِهِ (সুবহানা রাব্বিয়াল আজিম ওয়া বিহামদিহি) পড়বে।

ফায়েদা
প্রিয়নবি বলেছেন, ‘এ তাসবিহের আমলে অনেক বড় বড় রোগ থেকে মুক্ত থাকবে। যেমন- দৃষ্টিশক্তি বিলোপ, কুষ্ঠরোগ এবং : পক্ষাঘাতগ্রস্থ (পঙ্গুত্ব) থেকে বেঁচে থাকবে।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহর সবাইকে বার্ধক্যের বড় বড় রোগগুলো থেকে মুক্ত থাকার জন্য উল্লেখিত দোয়াটি নিয়মিত পড়ার তাওফিক দান করুন। আমিন।

এমএমএস/আরআইপি