নিউজিল্যান্ডের পার্মানেন্ট ভিসা পাচ্ছেন মুসলিমরা!

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫০ এএম, ২৫ এপ্রিল ২০১৯

গত ১৫ মার্চ শান্তির দেশ নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চের ২ মসজিদে জুমআর নামাজের সময় এক খ্রিস্টান চরমপন্থীর হাতে বন্দুকের নগ্ন আঘাতে নারী ও শিশুসহ ৫৫ জন মুসল্লি শহিদ হন। আর এ হামলায় আহত হন আরো ৫০ জন।

আহত ও হত্যাকাণ্ডের শিকার মুসল্লিসহ সে সময় মসজিদে অবস্থানকারী সব মুসলিমদের জন্য পার্মানেন্ট রেসিডেন্সি তথা স্থায়ী বসবাসের সুযোগ দিতে যাচ্ছে নিউজিল্যান্ড। খবর রয়টার্স ও ডেইলি মেইল।

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইষ্টচার্চের ২টি মসজিদে জুমার নামাজের সময় ভয়াবহ হত্যাকাণ্ডের শিকার হন মুসলিমরা। এ লক্ষ্যে নিউজিল্যান্ডের ইমিগ্রেশন ডিপার্টমেন্ট গতকাল ২৪ এপ্রিল (বুধবার) একটি নতুন ভিসা পদ্ধতি চালু করেছে।

ওই হামলার সময় দুটি মসজিদের যে কোনো একটিতে উপস্থিত ছিলেন এমন ব্যক্তিরাই এই নতুন ভিসার সুবিধা পাবেন। আল-নুর ও লিনউড মসজিদে হামলার সময় থাকা মুসল্লিদের বিশেষ ব্যবস্থায় এ ভিসা প্রদান করবে দেশটি।

উল্লেখ্য যে, ক্রাইষ্টচার্চের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে যে পার্মানেন্ট রেসিডেন্স ভিসা চালু করা হয়েছে তা ২৪ এপ্রিল ২০১৯ থেকে কার্যকর হবে। ২০২১ সালের ২৪ এপ্রিলের পর পার্মানেন্ট রেসিডেন্স ভিসার জন্য আবেদন করা যাবে না।

নিউজিল্যান্ডের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় সন্ত্রাসী ঘটনায় হতাহত ও মসজিদে অবস্থানকারীদের জন্য পার্মানেন্ট রেসিডেন্স তথা স্থায়ী বসবাসের সুযোগ দেশটির সরকারের এক যুগান্তকারী ও প্রশংসনীয় উদ্যোগ।

এমএমএস/জেআইএম